কথিত নূরে মুহাম্মাদী নামের জাল হাদিসের ভয়ংকর ইতিহাস পড়ুন ওহাবী সালাফীদের এই পোষ্টের খন্ডনমুলক জবাব:-(৪)


ওহাবী সালাফীদের লিংক:- http://markajomar.com/?p=880

বায়হাকী, তিবরানী, আবু নাঈম এবং ইবনে আসাকির হযরত ওছমান ইবনে আবুল আছ রদ্বিয়াল্লাহ তায়ালা আনহু হইতে বর্ননা মুবারক করেন যে! আমার মাতা আমাকে বলেছিলেন যে, সাইয়্যিদাতুন নিসাঈল আলামিন উম্মু রসুলিনা হযরত আমিনা আলাইহাস সালাম উনার হুজরা শরীফ উনার মধ্যে মহান আল্লাহপাক উনার হাবীব হুজুর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার বিলাদত শরীফ এর সময় আমি তথায় উপস্হিত ছিলাম৤ সাইয়্যিদাতুন নিসাঈল আলামিন উম্মু রসুলিনা হযরত আমিনা আলাইহাস সালাম উনার হুজরা শরীফ উনার চারদিক নুরের আলোকে উদ্ভাসিত হয়েছিল,আসমানের নক্ষএরাজি এইভাবে নীচের দিকে ঝুকিয়া পড়েছিল যে, মনে হচ্ছিল যেন তারকাগুলি আমার উপর পতিত হবে৤ তাছাড়াও মহান আল্লাহপাক উনার হাবিব হুজুর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার বিলাদত শরীফ এর সময় উনার মহাসম্মানিত আম্মা সাইয়্যিদাতুন নিসাঈল আলামিন হযরত আমিনা আলাইহাস সালাম উনার মহাসম্মানিত জিসিম মুবারক থেকে একটি নুর মুবারক বের হয়ে সমস্ত হুজরা শরীফ আলোকময় করিয়া তোলেন৤ সুবহানাল্লাহ৤(মাওলানা মুহাম্মদ কামরুজ্জামান,প্রথম প্রকাশ:-২০০৪ ইং, ভূমিষ্টের রা্ে অলৌকিক ঘটনাবলী অধ্যায়,পৃষ্টা নং:-৭৯. বাংলা সংস্করণ)

আহমদ বাযযার, তিবরানী, হাকেম, বাযহাকী এবং আবু নাঈম হযরত ইরবায ইবনে সারিয়া রদ্বিয়াল্লাহ তায়ালা আনহু হইতে বর্ননা মুবারক করেন যে! মহান আল্লাহপাক উনার হাবীব হুজুর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি ইরশাদ মুবারক করেন, আমি মহান আল্লাহপাক উনার বান্দা৤ আমি সেই সময় হইতে শেষ নবী, যখন সাইয়্যিদুনা হযরত আদম আলাইহিমহাস সালাম উনার সত্বা মুবারক মৃত্তিকার মধ্যে নিহিত ছিল৤ আমার জন্য হযরত ইবরাহীম খলিলুল্লাহ আলাইহিস সালাম তিনি দোযা মুবারক করেছিলেন৤ হযরত ঈসা আলাইহিস আমার আগমনের সুসংবাদ মুবারক দিয়েছিলেন এবং আমার মহাসম্মানিত মাতা আলাইহাস সালাম তিনি স্বপ্ন মুবারক দেখেছিলেন৤ নবী আলাইহিমুস সালাম উনাদের মাতাগন এইরূপ স্বপ্ন মুবারক দেখে থাকেন, যে! মহান আল্লাহপাক উনার হাবীব হুজুর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার মহাসম্মানিত মাতা আলাইহাস সালাম তিনি মহান আল্লাহপাক উনার হাবীব হুজুর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার বিলাদত শরীফ উনার সময় এমন একটি নুর মুবারক দেখিতে পান, যে নুর মুবারক উনার আলোতে সুদুর সিরিয়ার রাজমহল পর্যন্ত উনার দৃষ্টি মুবারক উনার সামনে ভেসে উঠেছিল৤ (ভূমিষ্টের রা্ে অলৌকিক ঘটনাবলী অধ্যায়,পৃষ্টা নং:-৭৯. বাংলা সংস্করণ)

ইবনে সা‘দ এবং ইবনে আসাকির হযরত ইবনে আব্বাস রদ্বিয়াল্লাহু তায়ালা আনহু উনার থেকে বর্ননা মুবারক করেছেন যে, সাইয়্যিদাতুন নিসায়িল আলামিন উম্মু রসুলীনা ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি বর্ননা মুবারক করেন, মহান আল্লাহপাক উনার হাবীব হুজুর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনাকে রেহেম শরীফ উনার মধ্যে ধারন করার পর হইতে উনার বিলাদত শরীফ পর্যন্ত আমার কোনরূপ ক্লেশ মুবারক অনুভব হয় নাই৤ মহান আল্লাহপাক উনার হাবীব হুজুর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার বিলাদত শরীফ উনার সময় একটি নুর মুবারক উনার উদয় হইল. সেই নুর মুবারক উনার আলোতে মাশরেক ও মাগরেবের সমস্ত এলাকা আলোকোজ্জ্বল হয়ে গেল৤ সুবহানাল্লাহ!(খাছায়েছুল কুবরা,পৃষ্টা নং-৭৯)

আর এই নুর মুবারক হলো মহান আল্লাহপাক উনার হাবীব হুজুর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি স্বয়ং নিজেই৤ সুবহানাল্লাহ৤ তিনি যেহেতু নুরে মুজাসসাম বা আপাদ মস্তক নুরময়৤ সুবহানাল্লাহ৤ সেই জন্যই হযরত আব্বাস আলাইহিস সালাম তিনি মহান আল্লাহপাক উনার হাবিব হুজুর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার প্রশংসা মুবারক করিতে গিয়ে বলিলেন, আপনি যখন আপনার বিলাদতী শান মুবারক প্রকাশ করিলেন, তখন সারা জগত আলোকিত হইয়া গেল এবং আপনার নুরের আলোতে দিক-দিগন্ত উদ্ভাসিত হইয়া উঠিল. এখন আমরা সেই নুর মুবারক এবং আলোর মধ্যে অবস্হান মুবারক করছি৤ সুবহানাল্লাহ৤ (খাছায়েছুল কুবরা,পৃষ্টা নং-৭০)

Views All Time
1
Views Today
2
শেয়ার করুন
TwitterFacebookGoogle+

মন্তব্য করুন

মন্তব্য করতে আপনাকে অবশ্যই লগইন করতে হবে