ছবি তোলা আর খোদা দাবি করা একই কথা


মহান খালিক্ব, মালিক, রব মহান আল্লাহ পাক তিনি ছবি, তোলা এবং মূর্তি বানানোর জন্য শক্তভাবে নিষেধ করেছেন। ছবি তোলা মানে শিরক করা। খালিক্ব, মালিক, রব মহান আল্লাহ পাক তিনি ক্বিয়ামতের দিন ছবি উত্তোলনকারী, মূর্তি শিল্পীকে তাদের বানানো ছবি বা মূর্তির মধ্যে প্রাণ দিতে বলবেন। কিন্তু শিল্পী বা চিত্রগ্রাহকরা তা পারবে না; তখন খালিক্ব, মালিক, রব মহান আল্লাহ পাক তিনি নিজে প্রাণ দিবেন ও উক্ত প্রাণ সম্বলিত প্রাণীসমূহকে মূর্তি শিল্পী ও চিত্রগ্রাহক তথা ছবি তোলা ব্যক্তি ও সাহায্যকারীদের আযাব গযব প্রদানের জন্য নির্দিষ্ট করবেন। নাঊযুবিল্লাহ!
প্রাণী বানানো খালিক্ব, মালিক, রব মহান আল্লাহ পাক উনার কাজ; মানুষ এটা করলেই শিরক ও কুফরী হবে। কঠিন গুনাহে গুনাহগার হবে। খালিক্ব, মালিক, রব মহান আল্লাহ পাক তিনি উনার জাতিগত কাজ বান্দা করলে খালিক্ব, মালিক, রব মহান আল্লাহ পাক তিনি উনার জাতিগত কর্মের অবমাননা হয়। অর্থাৎ অঘোষিতভাবে খোদা দাবি করার শামিল হয়। কাদিয়ানী আর এদের মধ্যে পার্থক্য শুধু এইটুকু যে, কাদিয়ানী ঘোষণা দিয়ে নবী দাবি করে কাফির হলো। আর মূর্তি শিল্পী বা চিত্রগ্রাহক ও ছবি উত্তোলনকারীরা অঘোষিতভাবে খোদা দাবি করল। আর এরা কাদিয়ানীর চাইতেও বড় শিরক বা কুফরী করল।
Views All Time
1
Views Today
1
শেয়ার করুন
TwitterFacebookGoogle+

মন্তব্য করুন

মন্তব্য করতে আপনাকে অবশ্যই লগইন করতে হবে