নবজাতক শিশুর তাহনীক করা সুন্নাতঃ


 

تحنيك (তাহনীক) শব্দের অর্থ: প্রশিক্ষণ দেয়া, অভিজ্ঞ করা। পারিভাষিক (ব্যবহারিক) অর্থ: খেজুর ভালভাবে চিবিয়ে নবজাতক শিশু-সন্তানের মুখে (তালুতে) দেয়াকে তাহনীক বলে। খেজুর না পেলে মধু দ্বারাও এ কাজ করা যায়। তা’যীন (ডান কানে আযান, বাম কানে ইকামত দোয়ার) পরপরই তাহনীক করতে হয়। অতঃপর মায়ের বুকের দুধ খাওয়াতে শুরু করতে পারে। পরহেযগার, মুত্তাক্বী, আল্লাহওয়ালা ব্যক্তিত্বের দ্বারা তাহনীক করানো উচিত। এরূপ ব্যক্তিত্বের অবর্তমানে নিজের বাবা-মা উনারা করতে পারে।

তবে কখনোই উলামায়ে ‘সূ’ তথা আলিম নামধারী বা পরিচিত ব্যক্তি যারা প্রকাশ্য নাজায়িয-হারাম কাজে সর্বদা লিপ্ত তাদের দ্বারা তাহনীক করানো উচিত না। কেননা এরা পৃথিবীতে সর্বনিকৃষ্ট প্রাণী। তাদের বদতা’ছীর বা প্রভাব- এ নিষ্পাপ শিশুর উপর ফেলানো কখনই উচিত হবে না।

Views All Time
1
Views Today
1
শেয়ার করুন
TwitterFacebookGoogle+

মন্তব্য করুন

মন্তব্য করতে আপনাকে অবশ্যই লগইন করতে হবে