নিশ্চিত দোয়া কবুলের রাত পবিত্র রজবুল হারাম মাস উনার প্রথম রাত


সাইয়্যিদুল মুরসালীন, ইমামুল মুরসালীন, নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার মুবারক সম্মানার্থে উনার উম্মতকে মহান আল্লাহ পাক তিনি যেসব ফাযায়িল ফযীলত ও নিয়ামত হাদিয়া করেছেন তার মধ্যে অন্যতম একটি ফাযায়িল-ফযীলত, বুযূর্গী ও দোয়া কবুলের রাত হচ্ছে- পবিত্র রজবুল হারাম মাস উনার প্রথম রাত। এই পবিত্র রাত সম্পর্কে সাইয়্যিদুল মুরসালীন, ইমামুল মুরসালীন, নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি ইরশাদ মুবারক করেন, “নিশ্চয়ই পাঁচ রাত্রিতে দোয়া নিশ্চিতভাবে কবুল হয়ে থাকে। ১. পবিত্র শাহরুল্লাহি হারাম রজবুল আছাম্ম উনারমাস উনার প্রথম রাত। ২. পবিত্র বরাত উনার রাতে ৩. পবিত্র ক্বদর উনার রাতে ৪. পবিত্র ঈদুল ফিতর উনার রাতে ও ৫. পবিত্র ঈদুল আযহা উনার রাতে।”
অতএব, পৃথিবীর সমস্ত জিন-ইনসানের উচিত- পবিত্র রজবুল হারাম মাস উনার প্রথম রাত্রি পেলে তাতে ইবাদত-বন্দেগী করে খালিছ তওবা-ইস্তিগফারের মাধ্যমে দুনিয়া ও আখিরাতের সার্বিক খায়ের বরকত মহান আল্লাহ পাক উনার নিকট মুহব্বতের সাথে চেয়ে নেয়া। ইনশাআল্লাহ আগামী ইয়াওমুস সাবতি বা শনিবার দিবাগত সন্ধ্যায় পবিত্র রজবুল হারাম মাস উনার চাঁদ দেখা গেলেই ওই রাত্রিটিই হবে মহান দোয়া কবুলের রাত। আর যদি ওই দিন চাঁদ দেখা না যায় তাহলে পরের দিন অর্থাৎ ইয়াওমুল আহাদি বা রোববার দিবাগত রাত হবে ওই মুবারক রাত।
Views All Time
1
Views Today
1
শেয়ার করুন
TwitterFacebookGoogle+

মন্তব্য করুন

মন্তব্য করতে আপনাকে অবশ্যই লগইন করতে হবে