সাময়িক অসুবিধার জন্য আমরা আন্তরিকভাবে দু:খিত। ব্লগের উন্নয়নের কাজ চলছে। অতিশীঘ্রই আমরা নতুনভাবে ব্লগকে উপস্থাপন করবো। ইনশাআল্লাহ।

বেহায়াপনা উসকে দেয়া এবং ঈমান কেড়ে নেয়াই ভ্যালেন্টাইন দিবসের উদ্দেশ্য


ভ্যালেন্টাইন ডে পালনের মাধ্যমে মুসলমান একদিক থেকে পবিত্র কুরআন শরীফ উনার নির্দেশ অমান্য করছে, বেপর্দা হচ্ছে আবার কাফির-মুশরিকদের রছম-রেওয়াজ পালনের দ্বারা ঈমান হারাচ্ছে। পবিত্র কুরআন শরীফ উনার মধ্যে স্পষ্টভাবে উল্লেখ রয়েছে যদি কেউ কোনো মেয়েকে বিয়ে করার ইচ্ছা পোষণ করে থাকে, তাহলে তাকে তার অভিভাবকদের মাধ্যমে প্রস্তাব পাঠাতে হবে। সরাসরি কথা বলতে নিষেধ করা হয়েছে। কিন্তু ভ্যালেন্টাইন ডে-তে ছেলেমেয়ে কিংবা মেয়েছেলে সরাসরি বেপর্দা- বেহায়া হয়ে প্রস্তাব করে, একাকি সময় কাটিয়ে থাকে। নাঊযুবিল্লাহ!

যাদের কাছে পবিত্র ঈমান উনার মূল্য নেই, এই জীবনকেই সবকিছু মনে করে থাকে তারা ঈমানদার নয়। তবে মনে রাখতে হবে প্রত্যেককে কবরে যেতে হবে এবং সম্পাদিত কাজ-কর্ম, আমলের হিসাব কড়ায় গ-ায় দিতে হবে। এ কথা যদি কেউ বিশ্বাস করে থাকেন তবে তাদের জন্য ফরয-ওয়াজিব হলো এই সমস্ত কাফির-মুশরিকদের রছম-রেওয়াজ পালন করা থেকে বিরত থাকা এবং মুসলমানদের জন্য নির্দিষ্ট বরকতময় দিন-রাত্রিগুলো যথাযথ তা’যীম-তাকরীমের সাথে পালন করা।

Views All Time
1
Views Today
2
শেয়ার করুন
TwitterFacebookGoogle+

মন্তব্য করুন

মন্তব্য করতে আপনাকে অবশ্যই লগইন করতে হবে