মুসলমানদের নীরবতার জন্যই আজ মুসলমান নির্যাতিত!


মুসলমানদের নীরবতার জন্যই আজ মুসলমান নির্যাতিত!

সাইয়্যিদুল মুরসালীন, ইমামুল মুরসালীন, খাতামুন নাবিইয়ীন, নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি ইরশাদ মুবারক করেন, “তোমরা কোথাও হারাম কাজ হতে দেখলে তা হাতে বাধা দিও, হাতে বাধা দেয়ার ক্ষমতা না থাকলে তা জবানে বাধা দিও, তাও যদি না পার তাহলে অন্তরে খারাপ জেনে সেই স্থান থেকে সরে যেও। এরপর পবিত্র ঈমান উনার কোনো স্তর নেই।”

যুগের মহান ইমাম সাইয়্যিদুনা হযরত আসসাফাহ আলাইহিস সালাম তিনি ইরশাদ মুবারক করেন, “যদি একটি মহাসমুদ্রের ভিতর একটি ছোট ঢিলও ছোড়া হয়, তাহলে পানি একটু হলেও নড়বে।” উপরোক্ত পবিত্র হাদীছ শরীফ এবং কওল শরীফ উনার মমার্থ এই যে- আজ সারা বিশ্বে এমন কোনো স্থান নেই, যেখানে হারাম কাজ হচ্ছে না; এমন কোনো দেশ নেই, যেখানে ক্রমাগত মুসলমান নির্যাতিত হচ্ছে না, কিন্তু প্রতিবাদ কোথায়? কেন মুসলমান তাদের শত্রুকে প্রতিহত করে না? যদি আজকে মুসলমানরা প্রতিবাদ না করে, তাহলে এর কাফফারা মুসলমানদেরই দিতে হবে। এখনই সময় প্রতিবাদের। সাইয়্যিদুনা হযরত আসসাফফাহ আলাইহিস সালাম উনার কওল শরীফ মোতাবেক প্রত্যেক মুসলমানরা তাদের নিজ নিজ স্থান থেকে হিন্দু মালাউন কাফিরদের বিরুদ্ধে কঠোর প্রতিবাদ শুরু করলেই সত্যিই এই দেশ হবে সোনার বাংলা। আর যে অন্যায়ের প্রতিবাদ করে না, সে বোবা শয়তান। আমরা মুসলমান বীরের জাতি, আমাদের অধিকার আছে স্বাধীনভাবে পবিত্র কুরআন শরীফ এবং পবিত্র সুন্নাহ শরীফ উনাদের অনুসরণ করার। কাজেই আমরা স্বাধীনতা চাই, চাই মহান একজন খলীফা।

আয় মহান আল্লাহ পাক! আমাদেরকে আপনার হাবীব নূরে মুজাসসাম হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার আওলাদ সাইয়্যিদুনা হযরত আসসাফফাহ আলাইহিস সালাম উনার খিলাফত মুবারক নসীব করুন। আমীন!

শেয়ার করুন
TwitterFacebookGoogle+

মন্তব্য করুন

মন্তব্য করতে আপনাকে অবশ্যই লগইন করতে হবে