মুসলমান হারাম-নাজায়িয ও বেদ্বীনী-বদদ্বীনী কাজে মশগুল থাকার কারন


সম্মানিত ইসলামী তর্জ-তরীক্বা এবং পর্বগুলোকে গুরুত্ব না দেয়া এবং পালন না করার কারণেই মুসলমান হারাম-নাজায়িয ও বেদ্বীনী-বদদ্বীনী কাজে মশগুল হয়ে থাকে। নাউযুবিল্লাহ!
মহান আল্লাহ পাক তিনি ইরশাদ মুবারক করেন, “নিশ্চয়ই মহান আল্লাহ পাক উনার নিকট একমাত্র মনোনীত দ্বীন হচ্ছেন সম্মানিত ও পবিত্র দ্বীন ইসলাম।” সুবহানাল্লাহ! অর্থাৎ ‘সম্মানিত ও পবিত্র দ্বীন ইসলামই হচ্ছেন মহান আল্লাহ পাক উনার এবং উনার রসূল, নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনাদের নিকট একমাত্র মনোনীত, নিয়ামতপ্রাপ্ত, হক্ব, পরিপূর্ণ ও সন্তুষ্টিপ্রাপ্ত দ্বীন। সুবহানাল্লাহ! অথচ তারপরও মুসলমানগণ সম্মানিত ইসলাম উনাকে অনুসরণ-অনুকরণ করে না। অর্থাৎ সম্মানিত ইসলামী তর্জ-তরীক্বা এবং পর্বগুলোকে গুরুত্বও দেয়না এবং পালনও করে না। নাঊযুবিল্লাহ! আর সম্মানিত ইসলামী তর্জ-তরীক্বা এবং পর্বগুলোকে গুরুত্ব না দেয়া এবং পালন না করার কারণেই মুসলমান হারাম-নাজায়িয ও বেদ্বীনী-বদদ্বীনী কাজে মশগুল হয়ে থাকে। নাউযুবিল্লাহ! অতএব, মুসলমান উনাদের উচিত- সম্মানিত দ্বীন ইসলাম উনাকে সূক্ষ্মাতিসূক্ষ্ম অনুসরণ-অনুকরণ করা এবং সম্মানিত দ্বীন ইসলাম উনার সমস্ত তর্জ-তরীক্বা ও সমস্ত পর্বগুলো গুরুত্বের সাথে পালন করা এবং সর্বত্র জারী করার কোশেষে দায়েমীভাবে মশগুল থাকা।

Views All Time
1
Views Today
1
শেয়ার করুন
TwitterFacebookGoogle+

মন্তব্য করুন

মন্তব্য করতে আপনাকে অবশ্যই লগইন করতে হবে