‘মৃত্যু’র কথা কি আপনার স্মরণে আছে…?


 

ব্যস্ততা, ব্যস্ততা আর ব্যস্ততা। পরিবার, সন্তানাদি, বন্ধু-বান্ধবদের নিয়েই কেটে যাচ্ছে প্রতিটি দিন। কখনো আনন্দ, কখনো দুঃখ নিয়ে আর চিন্তা-টেনশনতো আছেই। এসবের কারনে চলমান জীবনের এই চাকা যে কোনো একসময় বন্ধ হবে এবং বন্ধ হবার পর কি হবে -এই ভাবনা চিন্তা, ফিকিরটুকু মুছে গেছে অন্তর থেকে। এমনভাবে মুছে গেছে যেনো ‘মৃত্যু’ বলতে কোনো কিছু নেই। আফসুস! সবার জন্য, বিশেষ করে সে সকল মুসলমান-ঈমানদারদের জন্য, যারা মৃত্যু এবং পরকালকে ভুলে গেছে। অথচ ভুলে যাওয়া এই মৃত্যু ও পরকাল যে জীবনের সবচাইতে গুরুত্বপূর্ণ বিষয়, সে সম্পর্কে আমাদের যিনি খালিক্ব মালিক রব মহান আল্লাহপাক তিনি কালামুল্লাহ শরীফ উনার মাঝে অনেকবার স্মরণ করিয়ে দিয়েছেন। ইরশাদ মুবারক হয়েছে- “প্রত্যেক প্রাণীকে মৃত্যুর স্বাদ গ্রহণ করতে হবে। আর কিয়ামতের দিন তোমাদের পরিপূর্ণ বদলা দেয়া হবে। তারপর যাকে জাহান্নাম থেকে দূরে রাখা হবে এবং জান্নাতে প্রবেশ করানো হবে, সেই কামিয়াব। আর দুনিয়ার এই জীবন ধোঁকার বস্তু ছাড়া কিছুই নয়।” (পবিত্র সূরা আল ইমরান শরীফ, পবিত্র আয়াত শরীফ: ১৮৫) “প্রত্যেককে মৃত্যুর স্বাদ গ্রহণ করতে হবে। আমি তোমাদেরকে মন্দ ও ভাল দ্বারা পরীক্ষা করে থাকি এবং আমারই কাছে তোমরা প্রত্যাবর্তিত হবে।” (পবিত্র সূরা আম্বিয়া শরীফ, পবিত্র আয়াত শরীফ: ৩৫) তোমরা যেখানেই থাকো না কেন; মৃত্যু কিন্তু তোমাদেরকে পাকড়াও করবেই। যদিও তোমরা সুদৃঢ় দূর্গের ভেতরেও অবস্থান কর, তবুও।” (পবিত্র সূরা আন নিসা শরীফ, পবিত্র আয়াত শরীফ: ৭৮) “যখন তাদের কারো কাছে মৃত্যু আসে, তখন সে বলে- হে আমার রব! আমাকে পুনরায় (দুনিয়াতে) প্রেরণ করুন। যাতে আমি নেক আমল করতে পারি, যা আমি করিনি। কখনোই নয়, এটাতো একটি কথার কথা মাত্র। তাদের সামনে পর্দা আছে পুনরুত্থান দিবস পর্যন্ত।” (পবিত্র সূরা আল মুমিনুন, আয়াত শরীফ: ৯৯-১০০) তাই প্রত্যেক ঈমানদার-মুসলমানদের জীবনের প্রতিটি ক্ষেত্রেই মনে রাখা উচিত- যেকোনো সময়েই মৃত্যু আসতে পারে। সে জন্য সেভাবেই প্রস্তুতি নিয়ে রাখতে হবে। অর্থ্যাৎ দুনিয়ায় চলা-ফেরা, ব্যবসা-বাণিজ্য, পরিবারসহ প্রতিটি অবস্থাতেই নেক আমলে মশগুল থাকতে হবে। মহান আল্লাহপাক তিনি এবং উনার হাবীব নুরে মুজাসসাম হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনাদের মুহব্বতে, উনাদের যিকির-ফিকিরে মশগুল থাকতে হবে। তবেই পরকালে থাকবে কামিয়াবী, অন্যথায় আফসুস করা ছাড়া কোনো উপায় থাকবে না।
শেয়ার করুন
TwitterFacebookGoogle+

মন্তব্য করুন

মন্তব্য করতে আপনাকে অবশ্যই লগইন করতে হবে