যুগের সাথে, সময়ের সাথে তাল মিলিয়ে উলামায়ে সু’দের বিবর্তন


পবিত্র দ্বীন ইসলাম উনার মধ্যে প্রাণীর ছবি তোলা ভিডিও করা কাট্টা হারাম ও কবীরাহ গুনাহ। কিন্তু নামধারী মালানা মৌলুভীরা পবিত্র দ্বীন ইসলাম উনার শরীয়ত বাদ দিয়ে নিজের তৈরী করা শরীয়ত দিয়ে প্রচার করছে “প্রাণীর ছবি তোলা-ভিডিও করা বর্তমান যামানায় প্রয়োজন।” নাঊযুবিল্লাহ!
পবিত্র দ্বীন ইসলাম উনার মধ্যে পর্দা করা ফরযে আইন। বেপর্দা হওয়া হারাম কবীরাহ গুনাহ, দাইয়্যূছের অন্তর্ভুক্ত। কিন্তু নামধারী মালানা মৌলুভীরা সম্মানিত শরীয়ত বাদ দিয়ে নিজের মত শরীয়ত তৈরী করে বলছে- “বর্তমান যামানায় এত পর্দার দরকার নেই।” নাউযুবিল্লাহ!
নূরে মুজাসসাম হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনাকে অনুসরণ করা, উনার পবিত্রতম সুন্নত মুবারক পালন করা ফরযে আইনের অন্তর্ভুক্ত। কিন্তু নামধারী মালানা-মৌলুভীরা নিজেরা শরীয়ত বানিয়ে নিয়ে বলছে এত সুন্নত পালন করা লাগে না।” নাউযুবিল্লাহ!
কাজেই, যে বা যারা পবিত্র দ্বীন ইসলাম উনার শরীয়ত বাদ দিয়ে নিজের তৈরী করা শরীয়ত উনাকে পবিত্র দ্বীন ইসলাম উনার বলে চালিয়ে দিবে তারা চরম পর্যায়ের কাফির-মুনাফিকে পরিণত হবে। আর এরাই হচ্ছে, পৃথিবীর নিকৃষ্টতম প্রাণী বা উলামায়ে ‘সূ’। এদের কোনো কথা গ্রহণযোগ্য নয়। এই উলামায়ে ‘সূ’দের থেকে আমাদের সবাইকে বেঁচে থাকতে হবে। মহান আল্লাহ পাক তিনি যামানার ইমাম সাইয়্যিদুনা হযরত ইমামুল উমাম আলাইহিস সালাম উনার সম্মানার্থে সে তাওফীক্ব দান করুন। আমীন!

শেয়ার করুন
TwitterFacebookGoogle+

মন্তব্য করুন

মন্তব্য করতে আপনাকে অবশ্যই লগইন করতে হবে