রঙে রঙিন ইসলামী জীবন


১. পুরুষের কোর্তা, লুঙ্গি, রুমাল ইত্যাদি পোশাক সাদা রঙের হওয়া খাছ সুন্নত। একইভাবে মহিলাদের সেলোয়ার, কমিজ ইত্যাদি পোশাক সাদা রঙের হওয়া খাছ সুন্নত।
২. পুরুষের টুপির রঙ সাদা হওয়া খাছ সুন্নত।
৩. পুরুষের পাগড়ীর রঙ সবুজ, কালো ও সাদা এই তিন রঙ সুন্নত। লাল, কুসুম, হলুদ ও জাফরানী রঙের পাগড়ী  হারাম ও মাকরূহ তাহরীমী।
৪. চাদরের রঙ কালো, সবুজ, সাদা, ঘিয়া, ধূসর, গন্ধম, খয়েরী রঙ হওয়া সুন্নত।
৫. পুরুষের জন্য লাল ও হলুদ রঙের যেকোন পোশাক ব্যবহার করা হারাম।
৬. সেন্ডেল এর চামড়ার রঙ লাল-খয়েরী হওয়া খাছ সুন্নত। সাদা বা কালো রঙের সেন্ডেল ব্যবহার সম্পূর্ণ হারাম।
৭. মোজার চামড়ার রঙ খয়েরী হওয়া খাছ সুন্নত। সাদা মোজা হামানের এবং লাল মোজা ফিরাউনের পোষাক হওয়ায় এই দুই রঙের মোজা পরা হারাম।
৮. মহিলাদের জন্য কালো রঙের বোরকা পরা উত্তম।
৯. দস্তরখান-এর রঙ হাল্কা লাল (খয়েরী) হওয়া সুন্নত।
৯. টিস্যূ পেপার ব্যবহার করা ত্বাকওয়ার খিলাফ। তদপরি টিস্যু পেপার ব্যবহার করলে সাদা রঙের টিস্যূ ব্যবহার করা উচিত নয়।
১০. শোক পালনার্থে কালো রঙের পোশাক বা ব্যাজ পরিধান করা হারাম কারণ এটি বেদ্বীনদের আমল।

Views All Time
2
Views Today
2
শেয়ার করুন
TwitterFacebookGoogle+

  1. ১১. জুমুয়ার দিন, ঈদের দিন ও বিশেষ বিশেষ দিনে ইমাম ও খতীবগণ উনাদের জন্য কোর্তার উপরে কালো, ঘিয়া ও গন্ধম রঙের জুব্বা পরিধান করা খাছ সুন্নত।

    মহান আল্লাহ পাক আমাদের সকলকে যামানার ইমাম ও মুজাদ্দিদ রাজারবাগ শরীফ-এর মামদূহ হযরত মুর্শিদ ক্বিবলা আলাইহিস সালাম উনার সম্মানার্থে নূরে মুজাসসাম হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার সুন্নতের রঙে রঞ্জিত করে দিন ও সমস্ত হারাম থেকে হিফাযত করুন।

  2. প্রিয় পোস্টে যোগ করলাম। Heart Rose
    ৯. দস্তরখান-এর রঙ হাল্কা লাল (খয়েরী) হওয়া সুন্নত।
    দস্তরখান কি ???

  3. দস্তরখান হলো যে চামড়ার টুকরার উপর প্লেট ,ভাত ,রুটি,তরকারীর বাটি ইত্যাদি রেখে খাওয়া দাওয়া করা হয়। সেই চামড়ার টুকরাকে দস্তরখান বলা হয়। চামড়ার অভাবে খয়েরী রঙ্গের কাপড় এর টুকরা ব্যবহার করা যেতে পারে।

মন্তব্য করুন

মন্তব্য করতে আপনাকে অবশ্যই লগইন করতে হবে