সাইয়্যিদাতু নিসায়ি আহলিল জান্নাহ হযরত যাহরা আলাইহাস সালাম তিনি ছিলেন মিছদাক্বে হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম


পবিত্র হাদীছ শরীফ উনার মধ্যে বর্ণিত রয়েছে, উম্মুল মু’মিনীন হযরত ছিদ্দীক্বা আলাইহাস সালাম তিনি ইরশাদ মুবারক করেন, “নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি ছিলেন হুবহু পবিত্র কুরআন শরীফ উনার মিছদাক্ব।” সুবহানাল্লাহ!
অনুরূপ সাইয়্যিদাতু নিসায়ি আহলিল জান্নাহ, উম্মু আবীহা হযরত যাহরা আলাইহাস সালাম তিনিও ছিলেন নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার হুবহু মিছদাক্ব বা নমুনা। কথাবার্তা, চাল-চলন, আচার-আচরণ, উঠা-বসা, খাওয়া-দাওয়া, মুয়ামিলাত-মুয়াশিরাত অর্থাৎ প্রতিটি দিক দিয়েই হযরত যাহরা আলাইহাস সালাম উনার সাথে নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার অপূর্ব মিল ছিল। সুতরাং তিনি ছিলেন মিছদাক্বে হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহ আলাইহি ওয়া সাল্লাম। সুবহানাল্লাহ!
সেই উম্মু আবীহা হযরত যাহরা আলাইহাস সালাম উনার পবিত্র বিছালী শান মুবারক প্রকাশ উনার মাস হলো পবিত্র রমাদ্বান শরীফ। অর্থাৎ এ পবিত্র মাস উনার ৩ তারিখ হ”েছ উনার পবিত্র বিছালী শান মুবারক প্রকাশ উনার দিন।
কাজেই বাংলাদেশ সরকারসহ বিশ্বের সকল মুসলমানের উচিত হবে উনার পবিত্র বিছালী শান মুবারক প্রকাশ উপলক্ষে পবিত্র মীলাদ শরীফ উনার মাহফিল করে উনার ছানা-ছিফত, মর্যাদা-মর্তবা, ইজ্জত-সম্মান ফুটিয়ে তোলা। মহান আল্লাহ পাক তিনি রাজারবাগ শরীফ উনার আওলাদে রসূল, মামদূহ হযরত মুর্শিদ ক্বিবলা আলাইহিস সালাম উনার উসীলায় আমাদেরকে সে তাওফীক্ব দান করুন। (আমীন)

শেয়ার করুন
TwitterFacebookGoogle+

মন্তব্য করুন

মন্তব্য করতে আপনাকে অবশ্যই লগইন করতে হবে