হিন্দুয়ানী পোশাকে মুসলমানদের ঈদ পালন? নাউযুবিল্লাহ!!


আমাদের দেশে যতগুলো বিশেষ অনুষ্ঠান পালন করা হয় তার মধ্যে পবিত্র ঈদ হলো বিশেষ উল্লেখযোগ্য। অনুষ্ঠানটি বিশেষভাবে একমাত্র মুসলমানদের জন্যই। তাই এই বিশেষ দিনটি ইসলামী রীতিনীতিতে পালিত হবে এটাই স্বাভাবিক ছিলো। কিন্তু সারাদেশের শপিংমল আর কাপড়ের দোকানের হালচাল দেখলে মনে হয় মুসলমানরা যেন এই সময় দলে দলে হিন্দু হওয়ার জন্যই প্রস্তুতি নিচ্ছে। নাউযুবিল্লাহ!
এ সময় ভারতীয় হিন্দি সিরিয়ালের নামে, হিন্দু নায়ক-নায়িকাদের নামে নামকরণকৃত পোশাকাদি, অলঙ্কারাদি বিক্রির যেন ধুম পড়ে। শপিংমল ও ফ্যাশন হাউস কর্তৃপক্ষও ভারতীয় হিন্দি সিরিয়ালের নামের পোশাক আমদানির প্রতিযোগিতায় নামে।
আর সে তালে হুজুগে বাঙালিও হিন্দুয়ানী সাজে সাজার জন্য প্রস্তুতি নিতে থাকে। প্রতিযোগিতায় নেমে ভীড় জমায় সে সকল শপিংমলে। এই প্রতিযোগিতায় কেউ পিছিয়ে পড়লে তথা কারো স্বামী তার স্ত্রীকে ওমুক হিন্দু নায়িকার নামের পোশাক কিনে না দিলে সংসার ত্যাগ করে, সন্তান তার পিতা-মাতাকে ত্যাগ করে, আত্মহত্যাও করে। নাউযুবিল্লাহ!
আফসুস! মুসলমানদের জন্য, তারা কি কোনোদিন কোনো হিন্দুকে সুন্নতি পাগড়ী-টুপি, রুমাল লম্বা কোর্তা ইত্যাদি পরিধান করাতে পেরেেেছ? পারেনি এবং কখনো পারবেও না। কারণ মুসলমানগণ নিজেদের দ্বীন, নিজেদের ব্যক্তিত্ব ঐতিহ্যকে কদর না করলেও বিধর্মীরা কিন্তু ঠিকই তাদের কাল্পনিক ধর্মকে শক্তভাবে আঁকড়ে থাকে। নাউযুবিল্লাহ!

Views All Time
1
Views Today
1
শেয়ার করুন
TwitterFacebookGoogle+

মন্তব্য করুন

মন্তব্য করতে আপনাকে অবশ্যই লগইন করতে হবে