৯৮% মুসলমানের টাকা কোনো হারাম কাজে নয়, বরং সর্বশ্রেষ্ঠ ঈদ পবিত্র সাইয়্যিদুল আ’ইয়াদ শরীফ উপলক্ষ্যে খরচ করতে হবে


আমরা জানতাম আমাদের দেশের বর্তমান প্রধানমন্ত্রী বিশিষ্ট জনদরদী নেত্রী তিনি জনগণের ভালো চান। কিন্তু এখন তার কাজ কারবার দেখে মনে হচ্ছে আমার জানা কি ভুল? কারণ তিনি আমাদের মৌলিক যে ৬টি চাহিদা- খাদ্য, বস্ত্র, বাসস্থান, শিক্ষা, বিবাহ, চিকিৎসার প্রতি খেয়ালই রাখেন না। যার দরুন আমাদের দেশে সবকিছুর দাম অর্থাৎ চাল, ডাল, বস্ত্র, নিত্যপ্রয়োজনীয় সামগ্রীর দামে আগুন। এ কারণে আমাদের দেশে সবকিছু থাকার পরেও দেশে অভাব বিরাজ করছে। চিকিৎসা উচ্চ মূল্য হওয়ায় চিকিৎসার অভাবে অসংখ্য মানুষ মৃত্যুবরণ করছে।
অথচ বর্তমান সরকার আমাদের জনগণকে রেখে, শতকরা ৯৮ ভাগ মুসলিম জনগণের অর্থ নিয়ে বেলেল্লাপনার বিস্তারকারী ভারতের শিল্পীদের রাজধানী ঢাকা শহরে এনে কোটি কোটি টাকা তাদের হাতে তুলে দিচ্ছে। আর এদের জন্য করা হয় বিশেষ আয়োজন। নাঊযুবিল্লাহ! তাহলে এটাই কি সরকারের সুষ্ঠু ব্যবস্থাপনার পরিচয়? এ টাকা দিয়ে কী ফুটপাতের অসহায়, নিরন্ন, গৃহহীন মানুষের খাদ্য ও বাসস্থানের ব্যবস্থা করা যেতো না? সরকারের প্রতি আহবান ৯৮% মুসলমানের টাকা এ ধরনের হারাম কাজে ব্যয় না করে, বরং সাইয়্যিদুল আ’ইয়াদ শরীফ পবিত্র ঈদে মীলাদে হাবীবুল্লাহ ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার মাহফিল উপলক্ষে ব্যয় করুন।

Views All Time
1
Views Today
1
শেয়ার করুন
TwitterFacebookGoogle+

মন্তব্য করুন

মন্তব্য করতে আপনাকে অবশ্যই লগইন করতে হবে