হাদি উল -blog


I am a student....................


হাদি উল
 


মুসাফিরী পথের দূরত্ব সম্পর্কে বিশেষ তাজদীদ মুবারক প্রকাশ


খলীফাতুল্লাহ, খলীফাতু রসূলিল্লাহ, আহলু বাইতি রসূলিল্লাহ সাইয়্যিদুনা হযরত ইমামুল উমাম রাজারবাগ শরীফ উনার মামদূহ হযরত মুর্শিদ ক্বিবলা আলাইহিস সালাম উনার সম্মানিত লখতে জিগার আওলাদ, খলীফাতুল্লাহ, খলীফাতু রসূলিল্লাহ, কুতুবুল আলম, হাকীমুল হাদীছ, হুজ্জাতুল ইসলাম, ছাহিবুল ইলহাম, রসূলে নুমা, হাবীবুল্লাহ, জামি‘উল আলক্বাব, আহলু



ধর্মব্যবসায়ী ও বিধর্মীদেরকে গুরুত্বপূর্ণ পদগুলো থেকে অপসারণ জরুরী


আমাদের দেশের প্রশাসন ও সরকার অনেক সময় হাক্বীকত না জেনে, না বুঝে বিধর্মী, মুশরিক, অমুসলিম, জামাতী খারেজী, ওহাবী, ধর্মব্যবসায়ীদেরকে গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব ও পদে বসিয়ে থাকে। অথচ তারা এরপর যে দলীয়করণ ও স্বজনপ্রীতির ফলে প্রশাসন, সরকার ও দেশকে হুমকির মুখে ফেলে দেয়



আল মু‘য়াল্লিমাহ, মু‘য়াল্লিমাতু উম্মাহ, আল মুগীছাহ, মালিকাতুল কায়িনাত, আল মুনীরহ, নি’মাতুল্লাহ, বিনতু রসূলিল্লাহ ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম, উম্মু আবীহা,


যিনি খালিক্ব মালিক রব মহান আল্লাহ পাক তিনি ইরশাদ মুবারক করেন, اِنَّـمَا يُرِيْدُ الله لِيُذْهِبَ عَنْكُمُ الرِّجْسَ اَهْلَ الْبَيْتِ وَيُـطَـهِّـرَكُمْ تَطْهِيْرًا. অর্থ: “হে মহাসম্মানিত ও মহাপবিত্র হযরত আহলু বাইত শরীফ আলাইহিমুস সালাম! নিশ্চয়ই মহান আল্লাহ পাক তিনি চান আপনাদের থেকে সমস্ত



পবিত্র ছফর শরীফ মাস বরকত, রহমত ও রহস্যময় এক মাস


মহান আল্লাহ পাক রব্বুল আলামীন উনার পক্ষ থেকে বান্দার প্রতি গণনার সুবিধার্থে দান করা ১২টি মাস উনাদের মধ্যে পবিত্র ছফর শরীফ মাস অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ। এ পবিত্র মাস অবারিত রহমত, বরকত, সাকীনা ও মাগফিরাত দ্বারা বেষ্টিত। সুবহানাল্লাহ! এক নজরে পবিত্র ছফর শরীফ



পবিত্র কুরবানীর আগে গুজব রটনাকারীদের গ্রেফতার করে শাস্তির আওতায় আনতে হবে


দেখা যাচ্ছে, প্রতি বছর পবিত্র কুরবানীর ঈদ উনার ঠিক আগ মুহূর্তে একটি মহল পবিত্র কুরবানী উনার পশুর বিরুদ্ধে অপপ্রচারে লিপ্ত হয়। যেমন-‘কুরবানীর পশুতে অ্যানথ্রাক্স জীবাণু আছে’ কিংবা ‘মোটাতাজা গরুতে বিষ আছে’ ইত্যাদি। অথচ এ সকল দাবি সম্পূর্ণ ভ্রান্ত ও অস্তিÍত্বহীন। প্রকৃতপক্ষে



সাইয়্যিদুনা মুজাদ্দিদে আ’যম ইমাম রাজারবাগ শরীফ উনার মামদূহ হযরত মুর্শিদ ক্বিবলা আলাইহিস সালাম উনার সুমহান তাজদীদ মুবারক


খালিক্ব মালিক রব মহান আল্লাহ পাক তিনি ইরশাদ মুবারক করেন, “(হে আমার হাবীব ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম!) আমি আপনার আলোচনা বা সম্মান মুবারক উনাকে বুলন্দ করেছি।” মহান আল্লাহ পাক উনার রসূল, নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার



জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে ১১ দফা দাবিতে- আওয়ামী ওলামা লীগসহ সমমনা ১৩ ইসলামী দলের বিশাল মানববন্ধন ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত


(১). মীর কাসেমসহ কুখ্যাত যুদ্ধাপরাধীদের বিচার করায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী সরকারকে দেশ ও জাতীর পক্ষ থেকে তথা দ্বীনপ্রাণ মুসলমান ও আলিম উলামাদের পক্ষ থেকে আন্তরিক মোবারকবাদ। বাংলার ইহুদী রাজাকার সাঈদীরও ফাঁসির ব্যবস্থা করতে হবে। (২). বশহীদ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান



মগবাজার এলাকাবাসীর সাইয়্যিদুল আ’ইয়াদ শরীফ [২০১৫]


আয়োজনের একটি ভিডিও দেখুন : MOV00018



না’তু বিনতি রসূলিনা ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম সাইয়্যিদাতিনা হযরত যাহরা আলাইহাস সালাম-


নূরে মুজাসসাম হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার সম্মানিত বরকতময় বিছালী শান মুবারক প্রকাশ করার পর উনার লখতে জিগার সাইয়্যিদাতুনা হযরত যাহরা আলাইহাস সালাম তিনি প্রায় ১২টিরও অধিক সম্মানিত না’ত শরীফ পাঠ করেন। যেগুলো ‘নু‘ঊতুয যাহরা আলাইহাস সালাম’ হিসেবে



উলামায়ে ‘সূ’ সম্পর্কিত পবিত্র ইলম অর্জন করা সকলের জন্য ফরয।


  মহান আল্লাহ পাক তিনি পবিত্র কুরআন শরীফ উনার মধ্যে ইরশাদ মুবারক করেন, “তোমরা সত্যবাদী হলে দলীলসমূহ পেশ করো।” সব বিষয়ে দলীল পেশ করাই হক্কানী-রব্বানী উলামায়ে কিরাম উনাদের শান। আর দলীল না দিয়ে মনগড়া কাজ করা বা কথা বলা ইবলিস ও



কুরবানীর উদ্ভট নীতি চাপিয়ে দিয়ে সরকার কি মুসলমানদের ধর্মীয় অনুভূতি নিয়ে রাজনীতি করছে না?


কিছু দিন আগে বাংলাদেশের সরকারপ্রধান বলেছেন, “ধর্মীয় অনুভূতি নিয়ে কাউকে রাজনীতি করতে দেয়া হবে না।” (সূত্র: প্রথম আলো; ৮, আগস্ট, ২০১৫ ঈসায়ী) সরকারপ্রধানের বক্তব্য দ্বারা এটা স্পষ্ট বোঝা যাচ্ছে যে, কোনো ধর্মের অনুসারীদের ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত করা যাবে না, এটা সরকার



আজ মহান বিজয় দিবস ৪৩তম বিজয় বার্ষিকী …


১৯৭১ সালের এদিনের বিকেলে রমনার রেসকোর্স ময়দানে (বর্তমান সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে) পাকিস্তানী সেনারা মাথা নিচু করে অস্ত্র সমর্পণ করে। বিশ্বের মানচিত্রে অভ্যুদয় ঘটে নতুন রাষ্ট্র বাংলাদেশের। যে অস্ত্র দিয়ে তারা দীর্ঘ ৯ মাস বাঙালির রক্ত ঝরিয়েছে, ত্রিশ লাখ বাঙালিকে হত্যা করেছে, প্রায়