হিমাচল -blog


...


 


প্রসঙ্গঃ প্রতিটি উপজেলার নগরায়ন


পৃথিবীর ইতিহাসে মুসলমান জাতি সৌখিন, সভ্য, ও শ্রেষ্ঠ জাতির উচ্চ শিখরে আরোহণ করে আছে এবং জ্ঞান-বিজ্ঞান চর্চায় শ্রেষ্ঠত্ব অর্জন করেছেন। এ ধরনের উন্নতি ও সাফল্যের পেছনে একটি উল্লেখযোগ্য কারণ ছিলো নগরায়ন। ইসলামী স্বর্ণযুগের ইতিহাস পর্যবেক্ষণ করলে দেখা যাবে, প্রত্যেক খলীফাই গ্রামকে



প্রসঙ্গঃ মুজাদ্দিদে আ’যম সম্মানিত রাজারবাগ শরীফ উনার মামদূহ মুর্শিদ ক্বিবলা সাইয়্যিদুনা ইমাম খলীফাতুল্লাহ হযরত আস সাফফাহ আলাইহিছ ছলাতু ওয়াস


মুজাদ্দিদে আ’যম মামদূহ মুর্শিদ ক্বিবলা সাইয়্যিদুনা ইমাম খলীফাতুল্লাহ হযরত আস সাফফাহ আলাইহিছ ছলাতু ওয়াস সালাম তিনি অনন্তকালের জন্য মহাসম্মানিত সাইয়্যিদুল আ’ইয়াদ শরীফ জারি করেছেন এবং উনার মুরীদান উনাদেরকে নিয়ে দায়িমীভাবে তা পালন করে যাচ্ছেন। সুবহানাল্লাহ! এমনকি এই মহাসম্মানিত সাইয়্যিদুল আ’ইয়াদ শরীফ



ইখলাস বা খুলুছিয়ত


খালিক্ব মালিক রব মহান আল্লাহ পাক তিনি ইরশাদ মুবারক করেন- “ঈমানদানগণ উনাদেরকে শুধু এই নির্দেশ মুবারকই দেয়া হয়েছে যে- উনারা যেন খালিছভাবে মহান আল্লাহ পাক উনার ইবাদত-বন্দেগী করেন।” (পবিত্র সূরা বাইয়্যিনাহ শরীফ: পবিত্র আয়াত শরীফ ৫) মহান আল্লাহ পাক তিনি আমাদেরকে



‘আন্তর্জাতিক সুন্নত প্রচার কেন্দ্র’ প্রতিষ্ঠা ও সম্মানিত সুন্নত মুবারক উনার ফযীলত মুবারক প্রকাশে সাইয়্যিদে মুজাদ্দিদে আ’যম আলাইহিস সালাম


পবিত্র সুন্নত মুবারক উনার ফযীলত মুবারক প্রকাশে সাইয়্যিদে মুজাদ্দিদে আ’যম, নূরে মুকাররম, হাবীবুল্লাহ, মুহইউস সুন্নহ, কূল মাখলুকাতের ইমাম ও মুজতাহিদ, যামানার লক্ষ্যস্থল আহলে বাইত ওলীআল্লাহ, যামানার লক্ষ্যস্থল আওলাদে রসূল, যামানার শ্রেষ্ঠতম ইমাম ও মুজতাহিদ, সাইয়্যিদুনা হযরত ইমামুল উমাম আলাইহিস সালাম তিনি



‘নির্দিষ্ট স্থানে কুরবানী’ করার কথা বলা চরম পর্যায়ের জুলুম; যা পবিত্র কুরবানী উনাকে অবমাননা করার শামিল


সরকার বিগত কয়েক বছর থেকে পবিত্র ঈদুল আজহায় মুসলমানদেরকে স্বাধীনভাবে ও সুবিধাজনক স্থানে পশু জবাই করতে বাধা দিয়ে নির্দিষ্ট স্থানে কুরবানী করতে বাধ্য করার চেষ্টা করছে। নাউযুবিল্লাহ! যুক্তি হিসেবে তারা ময়লা-আবর্জনা ও যানজটের কথা উল্লেখ করে। এমন অযৌক্তিক চিন্তাধারার ফলে কি



মহিলাদের মসজিদে গমনে নিষেধাজ্ঞার ব্যাপারে বুখারী শরীফ উনার বিখ্যাত ব্যাখ্যাকার হযরত আল্লামা বদরুদ্দীন আইনী রহমতুল্লাহি আলাইহি উনার প্রণিধানযোগ্য ব্যাখ্যা


‘বুখারী’ শরীফ উনার বিখ্যাত ব্যাখ্যাকার আল্লামা হযরত বদরুদ্দীন আইনী রহমতুল্লাহি আলাইহি তিনি বলেন, “মহান খোদা তায়ালা উনার পানাহ! আজকের যুগে মহিলারা যে বিদয়াত আর নিষিদ্ধ জিনিস অবলম্বন করছে, পোশাক-পরিচ্ছদ আর রূপচর্চায় তারা যে নিত্যনতুন ফ্যাশন আবিষ্কার করছে; যদি উম্মুল মু’মিনীন সাইয়্যিদাতুনা



সুমহান পবিত্র ২৫শে শাওওয়াল শরীফ- রহমত, বরকত, নেয়ামত, মাগফিরাত হাছিল করার এক সুমহান দিবস


পবিত্র হাদীছ শরীফে ইরশাদ মুবারক হয়েছে, “নিশ্চয় মহান আল্লাহ পাক উনার ওলীগণ মৃত্যুবরণ করেন না, বরং উনারা অস্থায়ী আবাস থেকে স্থায়ী আবাসের দিকে প্রত্যাবর্তন করেন।” (মিরকাত) প্রসঙ্গতঃ মহান আল্লাহ পাক উনার যমীনে অন্যতম সর্বশ্রেষ্ঠা ও সুমহান মহিলা ওলীআল্লাহ, মুজাদ্দিদে আ’যম, গাউছুল



পহেলা বৈশাখ উপলক্ষে যারা টাকা-পয়সা খরচ করবে; তাদের কোনো ইবাদতই কবুল হবে না


সমাজে একটি বদপ্রথা বা বদরছম চালু আছে। আর তাহলো- ‘পহেলা বৈশাখ, পহেলা জানুয়ারি ভালো খেলে বা ভালো পরলে সারা বছর ভালো খাওয়া ও পরা যায়। নাউযুবিল্লাহ!’ মূলত এ প্রথাটি সম্পূর্ণরূপেই পবিত্র কুরআন শরীফ ও পবিত্র সুন্নাহ শরীফ উনাদের খিলাফ। অর্থাৎ কুফরী



সুস্থ্য থাকতে হলে চাই খাদ্য সচেতনতা: কোমল পানীয় থেকে দূরে থাকুন, রোগ-ব্যাধি থেকে সুস্থ থাকুন


আমাদের দেশে যেকোন পার্টিতে, অনুষ্ঠানে কিংবা অতিথি আপ্যায়নে কোল্ড ড্রিংক্স, সফট ড্রিংক্স কিংবা এনার্জি ড্রিংক্স পরিবেশন করাটা হালের ফ্যাশন হয়ে দাঁড়িয়েছে। এমনকি ঘরের অতি আদরের সন্তানদেরও অনেকে অতি উৎসাহে এসব ড্রিংক্স পান করায়। কিন্তু এসব পানীয়ের মধ্যে যে কি পরিমাণ এ্যালকোহল



সুমহান বেমেছাল ফযীলতপূর্ণ বরকতময় ২১শে জুমাদাল উখরা শরীফ। সুবহানাল্লাহ! বিনতু মিন বানাতি রসূলিল্লাহ ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম আল ঊলা,


নূরে মুজাসসাম হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি ইরশাদ মুবারক করেন, “সাইয়্যিদাতু নিসায়ি আহলিল জান্নাহ, সাইয়্যিদাতুনা হযরত আন নূরুল উলা আলাইহাস সালাম তিনি আমার অন্যতম সর্বশ্রেষ্ঠা বানাত অর্থাৎ মেয়ে।” সুবহানাল্লাহ! আজ সুমহান বেমেছাল ফযীলতপূর্ণ বরকতময় ২১শে জুমাদাল উখরা শরীফ।



আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে ভাষা শহীদ মুসলমানদের জন্য মুসলমানদের করণীয়


মহান আল্লাহ পাক তিনি ইরশাদ মুবারক করেন, ‘আমি প্রত্যেক হযরত নবী ও হযরত রসূল আলাইহিমুস সালাম উনাদেরকে ক্বওমের ভাষা দিয়ে প্রেরণ করেছি।’ প্রত্যেক হযরত নবী-রসূল আলাইহিমুস সালাম উনাদেরকে নিজ নিজ মাতৃভাষায় প্রেরণ করা হয়েছে। তাই মাতৃভাষাকে মুহব্বত করা পবিত্র সুন্নত মুবারক



তাযকিয়া ও সম্মান পেতে চাইলে সকলকে শুকরিয়া আদায় করতে হবে


মহান আল্লাহ পাক তিনি ইরশাদ মুবারক করেন: يَعْرِفُونَ نِعْمَتَ اللَّـهِ ثُمَّ يُنكِرُونَهَا وَأَكْثَرُهُمُ الْكَافِرُونَ অর্থ: “তারা মহান আল্লাহ পাক উনার নিয়ামত চেনে, তারপরও তা অস্বীকার করে, আর তাদের অধিকাংশই কাফির।” (পবিত্র সূরা নাহল শরীফ: পবিত্র আয়াত শরীফ ৮৩) তাযকিয়া ও সম্মান