হুশনেজন -blog


...


হুশনেজন
 


বাংলাদেশ খাদ্য উৎপাদনে স্বয়ংসম্পন্ন। অথচ সরকার প্রচার করে বেড়ায় যে, দেশে খাদ্য ঘাটতি আছে।


বিভিন্ন মৌসুমে খাদ্য উৎপাদন এত বেশি হয় যে, সঠিক বিপণনের অভাবে কৃষক কোন মূল্যই পায় না। এমনকি কৃষকের উৎপাদন খরচও উঠে না। এই সময়টাতে সরকার কৃষক কাছ থেকে খাদ্যগুলো ন্যায্য মূল্যে সংগ্রহ করে, হিমাগারে সংরক্ষণ করলে। একদিকে কৃষক যেমন ন্যায্যমূল্য পেতো



পাঠ্যবই ও সিলেবাসে যদি ইসলামী শিক্ষা না থাকে, তাহলে কোথায় থাকবে?


পাঠ্যবই বিতর্ক এখন দেশজুড়ে। তবে নানা রকম বিতর্কের মাঝে অসাম্প্রদায়িক, ধর্মনিরপেক্ষ, দেশাত্মবোধক, মানবতাবাদী বিষয়গুলো নিয়েই আলোচনা বেশি। তারা(!) বলতে চায়- ইসলাম শিখবেন, দ্বীন শিখবেন বাসায়, বাড়িতে, মা-বাবার কাছে। আর স্কুল-কলেজে এসে বাকি বিষয় শিখবেন; স্কুল-কলেজ নাকি দ্বীন শিক্ষার জায়গা নয়। আমরা



পবিত্র কুরআন শরীফ ও পবিত্র হাদীছ শরীফ উনাদের দৃষ্টিতে সুদের ভয়াবহতা


সুদ একটি হারাম এবং চরম ঘৃণিত কাজ। যা পবিত্র কালামুল্লাহ শরীফ এবং পবিত্র হাদীছ শরীফ উনাদের দ্বারা প্রমাণিত। খলিক্ব মালিক রব মহান আল্লাহ পাক তিনি ইরশাদ মুবারক করেন- يَا أَيُّهَا الَّذِينَ آَمَنُوا اتَّقُوا اللَّهَ وَذَرُوا مَا بَقِيَ مِنَ الرِّبَا إِنْ كُنْتُمْ



রাষ্ট্রধর্ম পবিত্র দ্বীন ইসলাম উনার দেশে ঈদের বাজারে হিন্দি সিরিয়ালের চরম প্রভাব কেন? সরকার কী করে ভারতীয় পোশাক আমদানির


বাংলাদেশের ঈদ বাজারে হাজার হাজার কোটি টাকার বেচাকেনা হয়। বিশেষ করে পোশাক ব্যবসায়ীগণ বহু আগে থেকে ঈদের জন্য প্রস্তুতি নিয়ে থাকেন। ফ্যাশন ডিজাইনারদের ঈদই থাকে তাদের লক্ষ্য। তারা নানান ধরনের ডিজাইনের পোশাক ঈদ বাজারে ছাড়ে। দেশের সামগ্রিক অর্থনৈতিক অবস্থা বেশি ভালো



কলকাতায় মহা ধুমধামের সহিত পবিত্র শবে বরাত পালনের প্রস্তুতি চলছে ।


   শবে বরাতকে সামনে রেখে কলকাতার তিলজলা এলাকার গোবরা কবর স্থানে চলছে প্রস্তুতির শেষ ধাপ। শবে বরাত উপলক্ষে কলকাতার এই দ্বিতীয় বৃহত্তম কবর স্থানে গত বছর এসেছিলেন প্রায় কুড়ি ল‍াখ জিয়ারতকারী। এবার জিয়ারতকারীদের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে বলে অনুমান। এই কথা



ভারতে প্রবল বর্ষণে কেদারনাথ মন্দিরের উপর পাহাড় ধস ॥ ৫০ পূজারীর লাশ উদ্ধার; ৫০০ নিখোঁজ, আটকা ৭০ হাজার


ভারতের উত্তরাখণ্ড রাজ্যে প্রবল বৃষ্টি ও বন্যায় কেদারনাথ মন্দির ও তার আশপাশের উপত্যকা এলাকায় ভয়াবহ ভূমিধসের ঘটনা ঘটেছে। এতে অন্তত ৫০ জন নিহত ও প্রায় ৫০০ পূজারী নিখোঁজ রয়েছে। উত্তরাখণ্ডের রুদ্রপ্রয়াগ জেলার জয়োতিরলিঙ্গা এলাকায় কেদারনাথ মন্দির অবস্থিত এবং প্রতি বছর কথিত



শুধু প্রাণহানির আশঙ্কা আর অবৈধ বিলবোর্ডই মুখ্য নয়; আমলে নিতে হবে বিলবোর্ডে চিত্রিত বিবস্ত্র দেহকেও তথা হারাম ছবি এবং


গতকাল দৈনিক আল ইহসানে ফার্স্ট লীড নিউজ হয়েছে, “সুন্দরী নারীদের বিলবোর্ড সড়ক দুর্ঘটনার অন্যতম কারণ। এ স্বীকারোক্তি খোদ সরকারদলীয় প্রভাবশালী যোগাযোগমন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরের।” গত পরশু মঙ্গলবার তিনি বলেন, “ডিজিটাল বিলবোর্ডের কারণে অনেক সময় চালকদের দৃষ্টিভ্রম হয়।” তিনি আরো বলেন “বিভিন্ন পণ্যের



রামপাল বিদ্যুৎকেন্দ্র কার স্বার্থে?


যে কোনো চুক্তি করার পূর্বে উভয়পক্ষ নিজেদের স্বার্থের দিকটা বিবেচনা করে লাভ-ক্ষতি বিবেচনা করে। হিসেব করে যখন লাভের পাল্লা নিজের দিকে বেশি হয় বা সমান সমান হয় তখন এক পক্ষ অন্য পক্ষের সাথে চুক্তি করে। কিন্তু বাংলাদেশের রাজনীতিবিদ ও আমলারা করে



এই না হল বাপের ব্যাটা.. রাষ্ট্রদূতকে বস্ত্রমন্ত্রী লতিফ সিদ্দিকীর প্রশ্ন – ট্রেড ইউনিয়ন নিয়ে বলার আপনি কে?


পোশাক শিল্পে ট্রেড ইউনিয়ন চালু নিয়ে বক্তব্য ‘অনধিকার চর্চা’ বলে লুটেরা হানাদার যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূত ড্যান মজিনাকে মনে করিয়ে দিয়েছেন বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী আব্দুল লতিফ সিদ্দিকী। এই বক্তব্য জানিয়ে রাষ্ট্রদূতকে একটি চিঠি পাঠানো হয়েছে বলে মন্ত্রণালয়ের জ্যেষ্ঠ তথ্য কর্মকর্তা জহিরুল ইসলাম জানিয়েছেন,



হেফাজত-জামাত একই মুদ্রার এপিঠ-ওপিঠ। হেফাজত গোমরাহ দেওবন্দী আর জামাত বাতিল মওদুদীর দল।


উভয়েই শুধু নিকৃষ্ট ধর্মব্যবসায়ী ও যুদ্ধাপরাধী সমর্থক নয়,বরং গোটা ইতিহাসের কলঙ্ক- পনের হাজার পবিত্র কুরআন শরীফ পোড়ানোকারী ধর্মদ্রোহী দল। বাঙালি মুসলমান কখনও পবিত্র কুরআন শরীফ বিনা ওযুতে স্পর্শ করে না। পবিত্র কুরআন শরীফ ধরে আগে চুমু খায়। পড়ার পর আবারো চুমু



হেক্বারত নেতা মামুনুল হক খুলনায় গ্রেফতার ( আলহামদুলিল্লাহ )


 হেফাজতে ইসলামের ঢাকা মহানগর কমিটির যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা মামুনুল হককে গ্রেফতার করেছে খুলনার সোনাডাঙ্গা থানা পুলিশ। রোববার সকালে নগরীর শিববাড়ী মোড় থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। খেলাফত মজলিসের সহযোগী সংগঠন যুব মজলিসের কেন্দ্রীয় সভাপতি হিসেবে সে দায়িত্ব পালন করছে। রোববার সন্ধ্যায়



কট্টর ওহাবীপন্থী হেফাজতীদের যাকাত দিলে যাকাত আদায় হবে না


উলামায়ে ‘সূ’ বা ধর্মব্যবসায়ী মাওলানা দ্বারা পরিচালিত মাদরাসা অর্থাৎ যারা সন্ত্রাসবাদ, মৌলবাদ ও অন্যান্য কুফরী মতবাদের সাথে সম্পৃক্ত সেই সমস্ত মাদরাসাতে যাকাত প্রদান করলে যাকাত আদায় হবে না। আর যারা ইসলামের নামে হরতাল, লংমার্চ করে, আউলিয়ায়ে কিরাম রহমতুল্লাহি আলাইহিম উনাদের মাযার