মুহম্মদ মাহদিউল ইসলাম -blog


...


 


মহান আল্লাহ পাক উনার সম্মানিত শি‘য়ার বা নিদর্শন মুবারকসমূহ!


মহান আল্লাহ পাক উনার সম্মানিত শি‘য়ার বা নিদর্শন মুবারকসমূহ! “শা‘য়ায়িরুল্লাহ” তথা মহান আল্লাহ পাক উনার সম্মানিত শি‘য়ার বা নিদর্শন মুবারক উনাদের সম্মানিত পরিচিতি মুবারক: মহান আল্লাহ পাক তিনি ইরশাদ মুবারক করেন- لَا تُـحِلُّوْا شَعَآئِرَ اللهِ অর্থ: “তোমরা মহান আল্লাহ পাক উনার



চাঁদ দেখা নিয়ে কিছু গুরুত্বপূর্ণ কথোপকথন


দর্শক: বাংলাদেশে যেমন ‘মাজলিসু রুইয়াতিল হিলাল (আন্তর্জাতিক)’ নামক চাঁদ দেখা কমিটি এবং ইসলামিক ফাউন্ডেশনের চাঁদ দেখা কমিটি রয়েছে, সউদীতে কি সেরকম চাঁদ দেখা কমিটি নেই? চাঁদ গবেষক: বাংলাদেশে আছে সরকারি আর বেসরকারি মিলিয়ে ২টি; কিন্তু সউদীতে শুধু সরকারি পর্যায়েই আছে ৬টি



বিশ্বের কুখ্যাত ১০ সন্ত্রাসী দেশের তালিকা


১) আমেরিকা: ইরাক, আফগানিস্তান, লিবিয়া, সিরিয়া, ইয়েমন, পাকিস্তানসহ সারা বিশ্বে কোটি কোটি মুসলমানকে শহীদ করার জন্য দায়ী এ সন্ত্রাসী রাষ্ট্র। ২) ইসরাইল: পরগাছা এ রাষ্ট্রটি তার আশ্রয়দাতা ফিলিস্তিনের উপর দীর্ঘদিন ধরে যুলুম নির্যাতন করে যাচ্ছে, হত্যা করছে অসংখ্য মুসলমানকে। ৩) ভারত:



সম্মানিত ঈমান এর মূল বিষয়


সাইয়্যিদুল আম্বিয়া ওয়াল মুরসালীন, খাতামুন নাবিইয়ীন, রহমাতুল্লিল আলামীন, নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার মুহব্বতই হচ্ছেন সম্মানিত ঈমানর মূল বিষয়। উনার সম্মানিত মুহব্বত ব্যতীত কেউই ঈমানদার বা মু’মিন মুসলমানদের অন্তর্ভুক্ত হবে না। পিতা-মাতা, আহলিয়া বা স্ত্রী, ছেলে-মেয়ে,



মুত্বহ্হার, মুত্বহ্হির, আছ ছমাদ, আফযালুন নাস ওয়ান নিসা’ বা’দা রসূলিল্লাহ ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম, মহাসম্মানিত ও মহাপবিত্র উম্মুল মু’মিনীন


একটি বিষয় খুব ভালোভাবে উপলব্ধি আবশ্যক যে, শুধু যাহিরী বা কিতাবী বর্ণনার দ্বারা সম্মানিত ও পবিত্র দ্বীন ইসলাম উনার প্রতিটি বিষয়ে চূড়ান্ত পর্যায়ের ফায়ছালা দেয়া কস্মিনকালেও সম্ভব নয়। অধিকাংশ ক্ষেত্রে বিষয়টি এরূপ ঘটে থাকে যে, যাহিরী বা কিতাবী বর্ণনা এক রকম



যে ঘরে বা স্থানে প্রকাশ্যে প্রাণীর ছবি, মূর্তি, ভাস্কর্য, ম্যানিকিন থাকে সেখানে রহমতের ফেরেশ্তা উনারা থাকেন না।


নূরে মুজাসসাম হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি ইরশাদ মুবারক করেন, ‘যে ঘরে বা স্থানে প্রকাশ্যে প্রাণীর ছবি, মূর্তি, ভাস্কর্য, ম্যানিকিন থাকে সেখানে রহমতের ফেরেশ্তা উনারা থাকেন না।’ প্রাণীর প্রতিকৃতি যেকোনো উদ্দেশ্যে তৈরি করা হোক না কেন, সবই মূর্তির



মাতৃভূমির স্বার্থ বিলিয়ে এ কেমন বন্ধুত্ব?


সাইয়্যিদুল মুরসালীন, ইমামুল মুরসালীন, নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযুর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি ইরশাদ মুবারক করেন, “স্বদেশের প্রতি মুহব্বত পবিত্র ঈমান উনার অঙ্গ।” বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমান আমাদের প্রিয় মাতৃভূমি বাংলাদেশের স্বার্থের বিষয়ে বিদেশী রাষ্ট্রের সাথে কোনো আপোস করেনি। বাংলাদেশ



আবারো নাস্তিক ও ইসলামবিদ্বেষীদের হাতেই সিলেবাস ও শিক্ষানীতি


বাংলাদেশের শিক্ষা মন্ত্রণালয় নবম ও দশম শ্রেণির ১২টি বইয়ের মধ্যে বাংলা সাহিত্য বইটি পরিমার্জনের দায়িত্ব দিয়েছে নাস্তিক্যবাদী ও চরম ইসলামবিদ্বেষী শ্যামলীকে, ইংলিশ ফর টুডে বইয়ের দায়িত্ব দিয়েছে মনজুরুলকে, বাংলাদেশ ও বিশ্বপরিচয় বইয়ের দায়িত্ব দিয়েছে আখতারুজ্জামানকে, বাংলাদেশ ও বিশ্বসভ্যতা বইয়ের দায়িত্ব দিয়েছে



কাশ্মীর সংকট সমাধানে বঙ্গবন্ধু যা বলেছিলেন


১৯৪৭ সালে ভারত-পাকিস্তান দুটি স্বাধীন রাষ্ট্র হিসেবে আত্মপ্রকাশের পর থেকেই কাশ্মীর সমস্যা শুরু। কাশ্মীরের একটি অংশ পাকিস্তানের সাথে সংযুক্ত। আরেকটি অংশ তথা কাশ্মীর ও জম্মুর জোরপূর্বক দখল নেয় ভারত। দুই কাশ্মীরের মধ্যে সবচেয়ে বেশি সংকট ভারত দখলকৃত জম্মু-কাশ্মীর ঘিরেই। কাশ্মীর সংকট



মুসলমানদের একটি মর্মান্তিক ইতিহাস ‘পহেলা এপ্রিল’


“এপ্রিল ফুল” বাক্যটা মূলত ইংরেজি। অর্থ- এপ্রিলের বোকা। এপ্রিল ফুল ইতিহাসের এক হৃদয় বিদারক ঘটনা। প্রতি বছর পহেলা এপ্রিল এলেই একে অপরকে বোকা বানানো এবং নিজেকে চালাক প্রতিপন্ন করার জন্য এক শ্রেণীর লোকদের বিশেষভাবে তৎপর হয়ে উঠতে দেখা যায়। বলাবাহুল্য, তারা



জনসংখ্যার নিম্নহার সমস্যায় ভুগছে বেশ কয়েকটি দেশ


বর্তমানে জনসংখ্যার নিম্নহার সমস্যায় ভুগছে ইউরোপের বিভিন্ন দেশ, যেমন জার্মানি, লাটভিয়া। জাপানের নিম্ন জন্মহার তো এখন সরকারের মাথাব্যথার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে। অন্যদিকে ১৯৫০ সালে চীনের জন্মহার ছিল ব্যাপক। ফলে জনসংখ্যা ৫০ কোটি থেকে বেড়ে ১৪০ কোটিতে পৌঁছে যায়। এরপর জন্মহার কমাতে



মুনাফিকের অন্যতম একটা বৈশিষ্ট্য হলো গালি দেয়া।


ভালো মানুষ কখনো গালি দেয় না। দিতেই পারে না। কারো প্রতি রাগান্বিত হলেও সে খারাপ ভাষা ব্যবহার করে না। ভালো মানুষের রাগ প্রকাশের ভঙ্গিটাও হয় সুন্দর ও সংযত। পক্ষান্তরে মন্দ মানুষ যখন রাগান্বিত হয় তখন সে ভুলে যায় ভদ্রতা এবং তার