মাহমুদ -blog


...


 


উশর আদায় করা ফরয


উশর শব্দটি আরবী শব্দ عشر থেকে উদ্ভুত। যার অর্থ হলো এক দশমাংশ অর্থাৎ দশভাগের একভাগ। ফল ও ফসলাদির যাকাতকে উশর বলে। যাকাত দেয়া যেমন ফরয, জমিতে বা মাটিতে উৎপাদিত ফলও ফসলের যাকাত দেয়াও অনুরূপ ফরয। পবিত্র যাকাত না দিলে যেমন ফরয



পবিত্র কালিমা শরীফ নিয়ে সালাফী ওহাবীদের কুফরীমূলক আপত্তির জবাব


অন্তরে মহর পরে যাওয়া সালাফী ওহাবীরা পবিত্র কালিমা তাইয়্যিবা শরীফ খুঁজে পায় না, অথচ পবিত্র হাদীছ শরীফ উনার মধ্যে এমন ছহীহ হাদীছ শরীফও আছে যেখানে উল্লেখ আছে সাইয়্যিদুল মুরসালীন, ইমামুল মুরসালীন, নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার



সুমহান ৯ জুমাদাল ঊলা শরীফ ক্বায়িম-মাক্বামে হযরত যুন নূরাইন আলাইহিস সালাম, আওলাদে রসূল সাইয়্যিদুনা হযরত হাদিউল উমাম আলাইহিস সালাম


যিনি খালিক্ব মালিক রব মহান আল্লাহ পাক তিনি উনার পবিত্র কালাম কালামুল্লাহ শরীফ উনার মধ্যে ইরশাদ মুবারক করেন- “সাবধান! নিশ্চয়ই খালিক্ব মালিক রব মহান আল্লাহ পাক উনার যারা ওলী রয়েছেন উনাদের কোনো ভয় নেই, চিন্তা নেই, পেরেশানী নেই। উনারা ঈমান এনেছেন



হিন্দুর দুর্গাপূজা পালনে ধনী-গরিব সবাইকে সরকারি অর্থ সাহায্য দেয়া হয়, কিন্তু ৯৮% মুসলমানের সামর্থ্যহীন গরিবদের পবিত্র কুরবানী করতে অর্থ


  দেশে মোট জনগোষ্ঠীর মধ্যে মাত্র দুই শতাংশেরও কম সংখ্যক হচ্ছে হিন্দু। তারা যাতে ঘটা করে দুর্গাপূজা পালন করতে পারে সেজন্য ধনী-গরিব প্রত্যেক হিন্দুকে মুসলমানের কষ্টার্জিত অর্থ থেকে জমাকৃত কোষাগার থেকে পর্যাপ্ত সরকারি অর্থ বরাদ্দ দেয়া হয়েছে, যা দিয়ে নুন আনতে



পাহাড়িদের উন্নয়নের কথা বলে গণহারে ধর্মান্তরিত করে খ্রিস্টান সংখ্যা বাড়াচ্ছে দেশী-বিদেশী এনজিও


দেশের পার্বত্য তিন জেলায় খ্রিস্টীয়করণের বেপরোয়া প্রতিযোগিতায় নেমেছে মিশনারী চার্চগুলো। উপজাতীয় ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর আর্থিক অসচ্ছলতার সুযোগ নিয়ে বিভিন্ন ঋণদাতা দেশ ও সংস্থা এ তৎপরতায় ইন্ধন দিচ্ছে। বিভিন্ন গোয়েন্দা সংস্থার রিপোর্টে এই চিত্র ফুটে উঠেছে। আর্থিক সহায়তার সুযোগে নৃ-গোষ্ঠীর দরিদ্র ও সহজ-সরল