মহানন্দা -blog


...


মহানন্দা
 


সন্ত্রাসবাদের কারণ ও প্রতিকারের উপায় প্রসঙ্গ


পবিত্র দ্বীন ইসলাম উনার আলোকে বিশ্ব, রাষ্ট্র বা সমাজে যতদিন সাম্য, সহিষ্ণুতা আর ন্যায় প্রতিষ্ঠিত না হবে, ততদিন সন্ত্রাসবাদ ফিরে ফিরে আসবে নতুন কোনো নামে নতুন কোনোখানে। সন্ত্রাসবাদ ঠেকাতে সবার আগে দরকার ইসলামী ঐক্য ও ভ্রতৃত্ববোধ। সন্ত্রাসবাদ প্রতিরোধে সন্ত্রাসবাদীকে সঙ্গী করে



সরি, কী সত্য যেন বলে ফেললাম!


পবিত্র দ্বীন ইসলামের আলোকে বিশ্ব, রাষ্ট্র বা সমাজে যতদিন সাম্য, সহিষ্ণুতা আর ন্যায় প্রতিষ্ঠিত না হবে, ততদিন সন্ত্রাসবাদ ফিরে ফিরে আসবে নতুন কোনো নামে নতুন কোনোখানে। সন্ত্রাসবাদ ঠেকাতে সবার আগে দরকার ইসলামী ঐক্য ও ভ্রতৃত্ববোধ। সন্ত্রাসবাদীকে সঙ্গী করে রাজনৈতিক কাটাকাটি বা



বঙ্গবন্ধু বলেছিলেন- ‘পিন্ডির গুহা থেকে মুক্ত হয়ে দিল্লির কাছে বন্ধক দিতে পারি না’।


বাংলাদেশ সরকার ভারতকে এবং ভারত সরকার বাংলাদেশকে বন্ধুরাষ্ট্র বলে প্রচার করে থাকে। কিন্তু লেনদেনের ক্ষেত্রে বাংলাদেশ হচ্ছে চরম বৈষম্য আর শোষণের শিকার। এটা বন্ধুত্বের নিদর্শন হতে পারে না। বঙ্গবন্ধু বলেছিলেন- ‘পিন্ডির গুহা থেকে মুক্ত হয়ে দিল্লির কাছে বন্ধক দিতে পারি না’।



ভারতে গরুর গোশত রফতানিকারক শীর্ষ ১০ সংস্থার মালিক হিন্দু


ভারতে গরু জবাই নিষিদ্ধ, উত্তরপ্রদেশে কসাইখানা বন্ধ করা নিয়ে যখন উত্তেজনা চলছে তখন দেশের শীর্ষ ১০ গোশত রফতানিকারক সংস্থার মালিকই হিন্দু বলে খবর প্রকাশিত হয়েছে। ভারতের কেন্দ্রীয় সরকারের বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সংস্থা কৃষি ও প্রক্রিয়াজাত খাদ্যপণ্য রফতানী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের অনুমোদিত দেশের ৭৪



মুসলমানদের ১৩০ ফরজের বিবরণ


ফরজের সংখা নিয়ে আলিম-উলামা, ইমাম-মুজতাহিদ, ফক্বিহ-মুহাদ্দিছগণের মধ্যে কিছু মতভেদ রযেছে। তবে অধিকাংশ উলামায়ে কিরামের মতামতের ভিত্তিতে ১৩০ ফরজের  বর্ণনা দেয়া হলো :   (ক). মুসলমানের পাচ রোকনে ৫ ফরজ: ১। কালিমা ২। নামাজ ৩। রোজা ৪। হজ্জ ৫। যাকাত।   (খ).



আজ মহান স্বাধীনতা দিবস


পদ্মা মেঘনা যমুনা বিধৌত ব-দ্বীপের দেশ এই সোনার বাংলাদেশ শতকরা ৯৮ ভাগ মুসলমান অধ্যুষিত দেশ। বহু নদী বেষ্টিত এ ভূ-ভাগের এক বড় অর্জন- বাঙালি মুসলমানদের অনন্য এক ইতিহাস, মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস আজ। মুক্তিযুদ্ধে আত্মদানকারী শহীদদের স্মৃতির প্রতি গভীর শ্রদ্ধা



নগ্ন ললনা পিয়াসী নয়; হুর-গেলমান লাভের মানসিকতা পোষণ করুন । তাহলে চরিত্রবান জীবন গড়ে উঠবে


জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামের জীবনের একটি অসতর্ক অধ্যায় হলো সাম্যবাদীদের দ্বারা সাময়িক বিভ্রান্তি। কবি তখন অকুণ্ঠচিত্তেই লিখেছেন- “গাহি সাম্যবাদের গান।” অভিযোগ রয়েছে, নজরুলের অভাব ও আত্মভোলা মানসিকতাকে পুঁজি করে তখন সাম্যবাদী তথা সমাজতন্ত্রীরা বেশ কিছু কবিতা লিখিয়ে নিয়েছিল। তার মধ্যে



বঙ্গবন্ধুর অসমাপ্ত আত্মজীবনী: তিনি হিন্দুদেরকে একদমই সহ্য করতে পারতেন না


“একদিন একটা ঘটনা আমার মনে দাগ কেটে দিয়েছিল, আজও সেটা ভুলি নাই। আমার এক বন্ধু ছিল ননীকুমার দাস। … ও ওর কাকার বাড়িতে থাকত। একদিন ওদের বাড়িতে যাই। ও আমাকে ওদের থাকার ঘরে নিয়ে বসায়। ওর কাকীমাও আমাকে খুব ভালবাসত। আমি



বঙ্গবন্ধুর ‘অসমাপ্ত আত্মজীবনী’তে কী আছে?


খুঁজলে এমন অনেক মুসলমান পাওয়া যায়, যারা বলে- ‘ব্রিটিশরা না আসলে আমরা এখনো অন্ধকারে পড়ে রইতাম। আধুনিকতার ছোঁয়াও পেতাম না। তারা আমাদের অনেক কিছু করে দিয়ে গেছে।’ ইত্যাদি ইত্যাদি। নাউযুবিল্লাহ! এখনো বাল্যবিবাহের কথা বললে অনেকের গা জ্বলে যায়। এরা কি ব্রিটিশদের



কথিত ‘কোমল পানীয়’ মোটেই কোমল নয়; এটা ব্যবসার ইহুদী ফাঁদ


কার্বোনেইটেড পানীয় (কথিত ‘কোমল পানীয়’) শরীরের জন্য খারাপ। তারপরও লোভ সামলানো দায়। কথিত ‘কোমল পানীয়’ পানের অদম্য আগ্রহকে দমাতে এই ধরনের পানীয়র কয়েকটি ক্ষতিকর দিক তুলে ধরেছে স্বাস্থ্যবিষয়ক এক ওয়েবসাইট। দাঁতের ক্ষতি: চিনি ও অম্লীয় উপাদান দুটোই প্রচুর পরিমাণে থাকে কার্বোনেইটেড



বিনা খরচে বিদায় করুন এলার্জি


মানবজীবনে এলার্জি কতোটা ভয়ঙ্কর তা যিনি ভুক্তভোগী শুধু তিনিই জানেন। এর উপশমের জন্য কতোজন কতো কিছুই না করেন। তবুও সুরাহা হয় না। কতো সুস্বাদু খাবার চোখের সামনে দেখে জিহ্বাতে পানি আসলেও এলার্জি ভয়ে তা আর খাওয়া হয় না। এজন্য বছরের পর



আন্তর্জাতিক আরবী ভাষা দিবস ও বাংলাদেশে আরবী চর্চা


১৮ ডিসেম্বর পালিত হলো আন্তর্জাতিক আরবী ভাষা দিবস। ১৯৭৩ সালের এদিনে অনুষ্ঠিত জাতিসংঘের ২৮তম অধিবেশনে ৩১৯০নং সিদ্ধান্ত মোতাবেক আরবীকে জাতিসংঘের অন্যতম দাপ্তরিক ভাষা হিসেবে গ্রহণ করা হয়। পরবর্তীতে ২০১২ সালে অনুষ্ঠিত ইউনেস্কোর ১৯০তম অধিবেশনে ১৮ ডিসেম্বরকে আন্তর্জাতিক আরবী ভাষা দিবস হিসেবে