মহানন্দা -blog


...


মহানন্দা
 


শুধুমাত্র কাফিররাই মৌলবাদী; মুসলমানরা নয়


তাবৎ বিধর্মীরা শাব্দিক অর্থে মৌলবাদী। কোনো মুসলমানই কস্মিনকালেও মৌলবাদী নয়। মৌলবাদীরা- গোঁড়া, অন্ধ, অসভ্য, বর্বর, হিংস্র, উগ্র, আগ্রাসী, যালিম, কুসংস্কারাচ্ছন্ন হয়। যেমন মৌলবাদী খ্রিস্টানরা তথা আগ্রাসী ক্রুসেডার খ্রিস্টানরা মুসলিম বিশ্বে তান্ডব চালিয়েছে, এখনো চালিয়ে যাচ্ছে। মৌলবাদীরা ভয়ঙ্কর প্রকৃতির সন্ত্রাসী। মৌলবাদী কাফির-বেদ্বীনদের



‘বিজ্ঞান’ শুধুমাত্র মুসলমানদেরই অবদান- একথা শুধু অতীত ইতিহাস বা নিকট ইতিহাসেই নয়, প্রত্যেক যুগেই প্রমাণিত সত্য।


পরিত্যক্ত পলিথিন তথা প্লাস্টিক থেকে ডিজেল ও পেট্রলের মতো জ্বালানি তেল পাওয়ার কৌশল উদ্ভাবন করেছেন জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের (জবি) রসায়ন বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ মাহমুদুর রহমান। তিনি পরীক্ষামূলকভাবে ৩০ গ্রাম প্লাস্টিক ব্যাগ থেকে ১৫ মিলিলিটার জ্বালানি তেল উৎপাদন করেছেন। এ প্রক্রিয়ায়



বাঙালি মুসলিম জাতির আজ ৪৫তম বিজয় বার্ষিকী ॥ * সব যুদ্ধাপরাধী রাজাকারের ফাঁসি কার্যকর ও তাদের সম্পদ বাজেয়াপ্ত করার


আজ ১৬ ডিসেম্বর। মহান বিজয়ের ৪৫তম বার্ষিকী। ৪৫ বছর আগে এই দিনে বিশ্বের মানচিত্রে স্বাধীন বাংলাদেশের অভ্যুদয় এদেশের বাঙালি মুসলমানদেরকে এনে দিয়েছিলো আত্মপরিচয়ের স্বাধীন ঠিকানা। আজ স্বাধীনতা বিজয়ের নির্মল আনন্দ প্রকাশের দিন, স্বাধীন আবাস ভূমি পওয়ায় মহান আল্লাহ পাক উনার প্রতি



ওহাবী গুরু ইবনে তাইমিয়া ও আব্দুল ওহাব নজদীর ঈদে মীলাদুন্নবীর পক্ষে ফতোয়া


বর্তমানে যারা পবিত্র ঈদে মিলাদুন্ননবীর বিপক্ষে অবস্থান নিয়েছে তাদের জিজ্ঞাসা করলে তারাই স্বীকার করবে তাদের একমাত্র পছন্দনীয় ইমাম হচ্ছে ইবনে তাইমিয়া ও আব্দুল ওহাব নজদী। এরা ইমামে আযম আবু হানীফা রহমতুল্লাহি আলাইহি থেকে শুরু করে সকল ইমাম মুস্তাহিদ আওলিয়ায়ে কিরামের বিরোধীতা



“তাবিজ ও ঝাড়- ফুঁক।”


হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার খাছ সুন্নত মুবারক উনার অন্তর্ভুক্ত “তাবিজ ও ঝাড়- ফুঁক।” সম্মানিত হাদীছ শরীফ উনার মধ্যে ইরশাদ মুবারক হয়েছে, ﻋﻦ ﺍﻡ ﺍﻟﻤﺆﻣﻨﻴﻦ ﺣﻀﺮﺕ ﻋﺎﺋﺸﺔ ﻋﻠﻴﻬﺎ ﺍﻟﺴﻼﻡ ﺍﻥ ﺍﻟﻨﺒﻰ ﺻﻠﻰ ﺍﻟﻠﻪ ﻋﻠﻴﻪ ﻭﺳﻠﻢ ﻛﺎﻥ ﻳﻨﻔﺚ ﻋﻠﻰ



এদেশের মুসলমানরা আর কতদিন হিন্দুঘেঁষা মিডিয়ার (দালাল সাংবাদিকদের) তৈরি রবীন্দ্র ঠগীয় গোলকধাঁধাঁয় ঘুরপাক খাবে?


রবীন্দ্র ঠগ ব্রিটিশদের সহযোগী দালাল ছিল, যা আমরা সকলেই জানি। কিন্তু যা অধিকাংশ লোকই জানে না, তা হলো- ব্রিটিশরা তাদের এই দালালটির খ্যাতি-বৃদ্ধির জন্য নিয়োগ করেছিল কিছু এজেন্ট তথা ভাড়াটে লেখকদের। সেসব সাদা চামড়ার এজেন্টরা রবীন্দ্রের নামে প্রচলিত ইংরেজি লেখাগুলো লিখে



পবিত্র সাইয়্যিদুল আ’ইয়াদ শরীফ উনার গুরুত্ব বুঝতে হলে- – – -


  পুঁথিগত শিক্ষা দ্বারা কখনো পূর্ণাঙ্গ জ্ঞানার্জন হয় না। কেননা বই বা পুস্তক দেখে যদি শিক্ষার্জন করা যেতো তাহলে মাদরাসা, মক্তব, স্কুল, কলেজ, মহাবিদ্যালয়, ইউনিভার্সিটি ইত্যাদি বিদ্যাপীঠ স্থাপনের প্রয়োজন হতো না। প্রত্যেক ছাত্ররাই লাইব্রেরী থেকে বই-পুস্তক ক্রয় করে পড়ালেখা করতে পারতো।



সমস্যার স্থায়ী সমাধানই পারে বিপন্ন রোহিঙ্গাদের বাঁচাতে


মিয়ানমারের আরাকানে (বর্তমান রাখাইন) রোহিঙ্গা মুসলিমদের মানবেতর জীবন আজকের নয়, শতাব্দীব্যাপী চলছে এই করুণ দশা। আরাকানের মুসলমানদের ইতিহাসে দেখা যায়, ১৪শ’ শতাব্দীর প্রথম দিক থেকে মুসলমানরা মিয়ানমারের আরাকান (বর্তমান রাখাইন) প্রদেশে শাসন কর্তৃত্ব প্রতিষ্ঠা করে। তবে সেখানে বসবাস শুরু করে আরো



বৌদ্ধদের মুসলিম নির্যাতনের ইতিহাস শত বছরের- ‘বার্মা মানেই মুসলিমদের নিশ্চিত মৃত্যু’


মিয়ানমারের রাখাইন (সাবেক আরাকান) রাজ্যের মংডু থেকে পালিয়ে আসা নির্যাতিত রোহিঙ্গা মুসলমানরা বলেছেন, মিয়ানমারে থাকা মানে নিশ্চিত মৃত্যু, তাই তারা বাংলাদেশেই থেকে যেতে চান। বাংলাদেশ সরকার সীমান্তে কঠোর নজরদারি চালালেও বিভিন্ন সীমান্ত এলাকায় এসে আশ্রয় নিয়েছে গুটিকতক নির্যাতিত রোহিঙ্গা মুসলিম। গত



ইংরেজি লিটারেচার পড়ে অজন্মা/বেজন্মা হওয়া যায়; মানুষ হওয়া যায় না।


  অনেকে মনে করে- ইংরেজিতে অনার্স/হনার্স বা মাস্টার্স পড়লে  বা ইংরেজিতে কথা বলতে পারলে জাতে উঠতে পরবে। তাই তারা অহঙ্কারে  বুকটা ফুলিয়ে চলে।  ধরাকে সরা জ্ঞান করে এরূপ আহমকরা। অথচ  ইংরেজি লিটারেচার পড়ে অতি সহজে অজন্মা/বেজন্মা হওয়া যায়; কিন্তু মানুষ হওয়া



নেক কাজে উৎসাহী করতে- সন্তানদের জান্নাতের অপার নিয়ামত শিক্ষা দিন


পড়ালেখা শিখাচ্ছেন- সন্তানের ভবিষ্যতের কথা চিন্তা করে। যেন বড় হয়ে নিজের পায়ে দাঁড়াতে পারে, ভালো কোনো চাকরি বা ব্যবসার মাধ্যমে সচ্ছলভাবে থাকতে পারে এই আশায়। কিন্তু একজন মুসলিম হিসেবে এটাই কি আপনার এবং আপনার সন্তানদের ভবিষ্যৎ? না, কখনোই নয়। বরং আমাদের



ফিকিরযোগ্য কথা