উদীয়মান সূর্য -blog


...


উদীয়মান সূর্য
 


অদৃশ্য বা ইনভিজিবল কালি!!!


যারা গোয়েন্দা গল্প পড়তে পছন্দ করেন তারা জানেন নিশ্চয়ই গোয়েন্দারা তাদের গোপন বার্তা অদৃশ্য কালি দিয়ে লিখে পাঠায় তাদের দলের লোকদের কাছে । আপনিও ইচ্ছা করলে তাদের মত অদৃশ্য কালি তৈরি করতে পারবেন । অদৃশ্য কালি তৈরি করতে যে সকল জিনিস



শানে শাহদামাদ ক্বিবলা


জান্নাতী হাওয়া আজ বহিছে কি আনন্দ লাগছে হৃদে! শাহদামাদজীর বিলাদত শরীফে খুশির ফুয়ারা বহিছে। দেখ নিছবত শাহদামাদজীর সাথে আক্বা মামদুহজীর ছিদ্দিক্বী নিছবত হুসনে যনে জযবাতে নিছবত ফারুকী হালে খিদমতে শান যুন্‌ নূরাইননী তরে হায়দারী শান আহলে বাইতের নিছবতে। খোদার দীপ্ত রবি



মক্কা শরীফ ও মদীনা শরীফ-এর ছবি জায়নামাযে সংযুক্ত করা মক্কা শরীফ ও মদীনা শরীফকে ইহানত করারই নামান্তর; যা কাট্টা


মক্কা শরীফ ও মদীনা শরীফ পৃথিবীর সর্বশ্রেষ্ঠ মর্যাদাসম্পন্ন স্থান। মক্কা শরীফ ও মদীনা শরীফকে যথাযথ তা’যীম বা সম্মান করা সকলের জন্যই ফরয-ওয়াজিব। মহান আল্লাহ পাক তিনি ইরশাদ করেন, “নিশ্চয়ই বরকতময় মক্কা শরীফ-এ মানুষের জন্য প্রথম ঘর স্থাপন করা হয়েছে।” হাদীছ শরীফ-এ



গোপন ক্যামেরা আছে কিনা কিভাবে বুঝবেন?


হারাম থেকে হারামেরই জন্ম হয়। এক হারাম শত হারামের জন্ম দেয়। হাদিছ শরীফে ইরশাদ হয়েছে, কিয়ামতের দিন ঐ ব্যক্তির কঠিন শাস্তি হবে, যে প্রাণীর ছবি আঁকে বা তোলে।(বুখারী শরীফ) আপাত দৃষ্টিতে হারাম মদে কিছু উপকারিতা থাকলেও অপকারিতাই বেশি। তদ্রুপ হারাম ছবির



শানে দাদী হুযুর ক্বিবলা


বুকের ভিতর গোপন ব্যাথায় কাঁদছে আজ কত প্রাণ দরুদ পড়ি সবে মিলে ছল্লু আলা দাদী হুযুর ক্বিবলা। রসুল প্রেমের মূর্ত প্রতীক ইলাহী ইশকে দিওয়ানা মহামিলনের এই ক্ষণে জানায় ত্বলায়াল-ফেরেশতাকুল। স্মৃতি হয়ে রয়ে গেলেন রাজারবাগের দাদী ক্বিবলা জিয়ারত উনার নছীব করুন হে



সবুজ বাংলা ব্লগ


অরুণ আলো নিয়ে এলো মোদের প্রিয় ব্লগ-সবুজ বাংলা নেক কাজে করি প্রতিযোগিতা আসো হে মুসলিম-মুসলিমা। মোদের ভাই-বোনদের করিতে হেফাযত ঈমান-আক্বীদা সবুজ বাংলা ব্লগে লেখি মোরা মোদের সেরা লেখা। জ্ঞান-বিজ্ঞানে পিছিয়ে পড়েছে আজ মুসলিম জাতি ইহা ইহুদী-নাছারাদের শয়তানী চাল শোন হে মুসলিম



ফরিয়াদ(কবিতা)


পড়ে জীবনী সাহাবাগনের স্মৃতিতে ভাসে ত্যাগী জীবনের ইতিহাসে যারা রয়েছেন সমুজ্জল হৃদে তারা শ্রদ্ধায় উচ্ছল। জালিম-কাফিরদের অন্ধকার যুগ করেছেন নূরের আলোয় আলোকিত বদলে দিয়েছেন ধরণীর আনন হয়ে হাবীবি ইশকে ফানা। ফরিয়াদ করি আক্বাজীর তরে বাঁধুন মোরে সাহাবী নিছবতে হুসনে যনে রাখুন



হামলা চালিয়েছে আরএসএস অথচ মিথ্যা অপবাদ দিয়ে মুসলিম যুবকদের উপর চালিয়েছে অমানবিক নির্যাতন!!!


ভারতে কোনো বোমা হামলা, সন্ত্রাসী তৎপরতা দেখা গেলেই মুসলিমব্যক্তিত্ব ও মুসলিম সংগঠনগুলোর নাম ভেসে আসে (!) ভারতীয় মিডিয়া ব্যাপকভাবে প্রচার করতে থাকে পাকিস্তানি গোয়েন্দা সংগঠন, লস্কর-ই-তৈয়েবা ইত্যাদি দায়ী! ভাবখানা এমন যেন, একেবারে ‘সুস্পষ্ট’ প্রমাণের ভিত্তিতেই এসব দাবি করা হয় বিশেষ করে



যারা শুধুমাত্র কুরআন শরীফ মানে কিন্তু হাদীছ শরীফ, ইজমা ও ক্বিয়াস মানে না তারা কি?


শরীয়তের ফতওয়া হলো, যারা শুধুমাত্র কুরআন শরীফ মানে (আহলে কুরআন) বলে দাবি করে, তারা কাট্টা কাফিরের অন্তর্ভুক্ত। কাজেই তাদের কথা মোটেই গ্রহণযোগ্য নয়।স্বয়ং নূরে মুজাসসাম হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম বলেছেন, আমি তোমাদের কাউকে যেন এরূপ না পাই সে তার



কে তিনি ???কে তিনি ???


বের হলাম সফরে।পথ চলছি- হঠাৎ কারো যেন অট্টহাসি আমার কানে আসে,দাঁড়িয়ে পড়ি। সাথে সাথে শুনতে পাই কান্নার ধ্বনি । এক পা ও সামনে অগ্রসর করতে পারছিনা ,কে যেন আমাকে পিছন দিক থেকে আটকে ধরে রেখেছে। কার অট্টহাসি!!! কার এই কান্নার ধ্বনি!!!



ছবি ব্লগ




প্রসঙ্গ: ছদকাতুল ফিতর


আখিরী রসূল, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম ছদকাতুল ফিতরের পরিমাণ সম্পর্কে ইরশাদ করেন- “হযরত আব্দুল্লাহ ইবনে সা’লাবা অথবা সা’লাবা ইবনে আব্দুল্লাহ ইবনে আবু সুআইর উনার পিতা হতে বর্ণনা করেন যে, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ইরশাদ করেন, এক সা’