সাময়িক অসুবিধার জন্য আমরা আন্তরিকভাবে দু:খিত। ব্লগের উন্নয়নের কাজ চলছে। অতিশীঘ্রই আমরা নতুনভাবে ব্লগকে উপস্থাপন করবো। ইনশাআল্লাহ।

প্রভাতের সূর্য -blog


...


প্রভাতের সূর্য
 


যাহরায়ী নকশার এক অনন্যা আলোকবর্তিকা


  লাইলাতু ইছনাইনিল আযীম। ছলাতুল মাগরিব কেবল সমাপ্ত হয়েছে। চাঁদনী কিরণে ভুবন মোহিত। তবে আজকের প্রকৃতি অন্য রকম। আজ সারা কায়িনাত স্বয়ং বারী তায়ালা কর্তৃক-সুসজ্জিত। মাখলুকাত মাঝে ঈদ আর ছলাতের বান। আর এত আয়োজনের প্রেক্ষাপটও একজন বিশেষ ব্যক্তিত্ব কেন্দ্রিক। উম্মুল উমামী



গিরিশচন্দ্র কর্তৃক পবিত্র কুরআন শরীফ উনার অনুবাদের প্রকৃত ইতিহাস


গিরিশচন্দ্রের অনুবাদ দেখে যদি কেউ মনে করে, মৌলবাদী হিন্দুরা মহাজ্ঞানী (!) ছিলো, কিংবা গিরিশচন্দ্র আরবী ভাষায় পারদর্শী ছিলো, তাহলে সেটা হবে তার ইতিহাসজ্ঞানের অভাব। তৎকালীন সময়ে ফারসী ও উর্দুতে পবিত্র কুরআন শরীফ উনার তরজমা প্রচলিত ছিলো। মুসলমানগণ ফারসী-উর্দু পড়তে পারতেন, বিপরীতে



মহাপবিত্র ১২ই রবীউল আউওয়াল শরীফই হচ্ছেন- কুল-কায়িনাতের জন্য সর্বশ্রেষ্ঠ ঈদ উনার দিন। সুবহানাল্লাহ! যা আসতে আর ৩২২ দিন


মহান আল্লাহ পাক তিনি ইরশাদ মুবারক করেন, ‘(হে আমার হাবীব ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম!) আপনি বলুন, মহান আল্লাহ পাক উনার ফযল ও রহমত মুবারক অর্থাৎ আমাকে পাওয়ার কারণে তোমাদের উচিত ঈদ বা খুশি প্রকাশ করা।’ সুবহানাল্লাহ! অর্থাৎ যেদিন আখিরী রসূল, নূরে



ইহকালে যা উপার্জন করা হয়েছে, পরকালে তাই খরচ করতে হবে। মুফতে কিছু মিলবে না


আমরা এক মাসে যা আয় করি পরবর্তী মাসে তা থেকে ব্যয় করি। কোনো মাসে আয় কম হলে পরবর্তী মাসে কষ্টে জীবন চলে। মানব জীবনের অন্য দিক ইহজীবন এবং পরজীবনে একই নিয়ম চালু আছে। পবিত্র হাদীছ শরীফ উনার মধ্যে আছে- এই দুনিয়া



ব্রাজিলে খনির বর্জ্য ফেলার জায়গায় বিস্ফোরণ বাধ ভেঙ্গে পুরো গ্রাম কাদামাটির নিচের চাপা


  ব্রাজিলের একটি খনিতে ভূমিধসে অন্তত ১৭ জনের লাশ উদ্ধার হয়েছে। এ ঘটনায় আহত হয়েছে আরো অর্ধশতাধিক। এখনো নিখোঁজ রয়েছে অনেকে। দেশটির দক্ষিণপূর্বাঞ্চলীয় মিনাস গেরাইস প্রদেশের একটি খনির বর্জ্য ফেলার জায়গায় বিস্ফোরণ হলে বাঁধ ভেঙে ঘন, পুরু, লাল রঙের বিষাক্ত কাদামাটির



পবিত্র কারবালা শরীফ উনার নির্জন প্রান্তরে সাইয়্যিদুশ শুহাদা সাইয়্যিদুনা হযরত ইমামুছ ছালিছ মিন আহলি বাইতি রসূলিল্লাহি ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া


৬১ হিজরী সনের ১০ মুহররমুল হারাম শরীফ সাইয়্যিদুশ শুহাদা সাইয়্যিদুনা হযরত ইমামুছ ছালিছ মিন আহলি বাইতি রসূলিল্লাহ ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি উনার সপরিবারসহ কারবালার নির্জন প্রান্তরে সম্মানিত শাহাদাত মুবারক গ্রহণ করেন। মূলত, উনাদের এই শাহাদাত মুবারক উনার পিছনে নিঃসন্দেহে কাফির



রামপাল বিদ্যুৎকেন্দ্র: ‘দেশকে বাঁচাতে হলে সুন্দরবনকে রক্ষা করতে হবে’


‘রামপাল বিদ্যুৎকেন্দ্রসহ সুন্দরবন বিধ্বংসী সব প্রকল্প বাতিল কর, দেশী-বিদেশী লুটেরাদের কবল থেকে সুন্দরবন রক্ষা কর, বাঁচাও সুন্দরবন’ সেøাগানে সুন্দরবন রক্ষা অভিযাত্রার পথসমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে ফরিদপুরের মধুখালীতে। ঢাকা থেকে সুন্দরবন পর্যন্ত এ অভিযাত্রার আয়োজক সিপিবি-বাসদ। গতকাল বৃহস্পতিবার (১৫ অক্টোবর) বেলা ১১টায় ঢাকা-খুলনা



মুসলমান দাবি করে যারা কাফির-মুশরিকদের নিয়ম-নীতি, তর্জ-তরীক্বা, বেশ-ভূষা গ্রহণ করে তাদের কাফিরই দাবি করা উচিত


মুসলমান দাবি করে, পরিচয় দিয়ে যদি সম্মানিত দ্বীন ইসলাম উনার নিয়ম-নীতি, হুকুম-আহকাম পালন করা না হয়, মুসলমানদের লেবাস বা পোশাক পরিধান করা না হয়, সুন্নত পালন করা না হয়, মোট কথা নূরে মুজাসসাম হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনাকে



সুমহান ১৪ই যিলহজ্জ শরীফ: হযরত আহলু বাইত শরীফ আলাইহিমুস সালাম উনাদেরকে মুহব্বত করা, খিদমত করা ফরয


পবিত্র কুরআন শরীফ উনার মধ্যে ইরশাদ মুবারক হয়েছে, মহান আল্লাহ পাক তিনি ইরশাদ মুবারক করেন- قل لا اسئلكم عليه اجرا الا الـمودة فى القربى অর্থ: “হে আমার হাবীব ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম! আপনি উম্মতদেরকে বলুন, আমি তোমাদের নিকট কোনো প্রতিদান বা



দেশের উন্নয়নে রেল যোগাযোগ ব্যবস্থা উন্নয়নে নজর দিতে হবে


সড়ক পথে যোগাযোগ ব্যবস্থা থেকে রেল পথে যোগাযোগ অনেক বেশি আরামদায়ক, নিরাপদ ও সস্তা। অথচ বাংলাদেশে রেলপথ উন্নয়নে তেমন গুরুত্ব দেয়া হয় না, নেয়া হয় না উল্লেখযোগ্য উদ্যোগ। বলাবাহুল্য, কথিত উন্নত রাষ্ট্রগুলোর জনগণ যাতায়াতের জন্য সবচেয়ে বেশি রেলপথ ব্যবহার করে, সেখানে



কথিত বাংলা সনের পহেলা বৈশাখ বাঙালির হাজার বছরের ঐতিহ্য নয়


দেশের তথাকথিত বুদ্ধিবিহীন বুদ্ধিজীবী, মূর্খ সাহিত্যিক ও (অ)শিক্ষিত সমাজ বলে থাকে যে, পহেলা বৈশাখ বাঙালির হাজার বছরের ঐতিহ্য। এই সকল মূর্খ বুদ্ধিজীবী, অজ্ঞ সাহিত্যিক, অশিক্ষিত সমাজ প্রকৃতপক্ষে ইতিহাস, ভূগোলসহ সকল বিষয়ে নিরেট অজ্ঞ ও মূর্খ। প্রথমত: বাংলা সন বলে কোনো সনের



নৌদস্যুর জাত ব্রিটিশ বেনিয়াদের পাচাটা গোলাম অভিশপ্ত ইবনে ওহাব নজদীর নিকৃষ্ট চেহারা


পবিত্র কা’বা শরীফ উনার পূর্ব দিকের একটি মরুময় ঘৃণিত অঞ্চলকে নজদ বলে। এ অঞ্চলের অধিকাংশ অধিবাসীরা মহান আল্লাহ পাক উনার গযবপ্রাপ্ত এবং নূরে মুজাসসাম হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার অভিশপ্ত। পবিত্র মক্কা শরীফ বিজয়ের পর নূরে মুজাসসাম হাবীবুল্লাহ