মুজাদ্দিদী সৈনিক -blog


...


 


নূরে মুজাসসাম, হাবীবল্লাহু হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার সম্পর্কে কয়েকটি কুফরী আক্বিদার খন্ডনমূলক জবাব


নূরে মুজাসসাম, হাবীবল্লাহু হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনাকে মাটির তৈরি বলা কুফরী: “কুরআন শরীফ-এর যে সকল আয়াত শরীফ-এ বলা হয়েছে মানুষ মাটির তৈরী সে সকল আয়াত শরীফ-এর আলোচ্য বা লক্ষ হলেন “হযরত আদম আলাইহিস সালাম।” কেননা শুধুমাত্র হযরত আদম



সাইয়্যিদাতু নিসায়িল আলামীন, সাইয়্যিদাতুনা হযরত উম্মুল মু’মিনীন আছ্ছালিছাহ ছিদ্দীক্বা আলাইহাস সালাম উনার সম্পর্কে মুনাফিক ও কাফিরগোষ্ঠীর অপপ্রচারের সঠিক জাওয়াব


বর্ণিত আছে যে, সম্মানিত নবুয়ত মুবারক প্রকাশের ১০ম বছরে সাইয়্যিদাতু নিসায়িল আলামীন, সাইয়্যিদাতুনা হযরত উম্মুল মু’মিনীন আল উলা কুবরা আলাইহাস সালাম উনার বিছালী শান মুবারক প্রকাশের পর নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ, হুয়ূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনাকে চিন্তান্বিত দেখে বিশিষ্ট ছাহাবী



উম্মুল মু’মিনীন সাইয়্যিদাতুনা হযরত ছিদ্দীক্বা আলাইহাস সালাম উনার বাল্যাবস্থায় আক্বদ বা নিকাহ মুবারক সম্পন্ন হওয়ার ব্যাপারে যারা চু-চেরা


সম্প্রতি কিছু মুনাফিক শ্রেণীর লোক তারা পেপার-পত্রিকায়, বই-পত্রে, ইন্টারনেটে উম্মুল মু’মিনীন সাইয়্যিদাতুনা হযরত আয়িশা ছিদ্দীক্বা আলাইহাস সালাম উনার বয়স মুবারক নিয়ে বিভ্রান্তি ছড়াচ্ছে। তারা একথা ছড়াচ্ছে যে, “নূরে মুজাসসাম হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার সাথে উম্মুল মু’মিনীন সাইয়্যিদাতুনা



১২ রবিউল আউয়াল শরীফই হলো হুযুর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার বিলাদত শরীফের সঠিক তারিখ


নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার বিলাদত শরীফ-এর তারিখ নিয়ে অনেক বদ মাযহাব, বদ আক্বীদা ও কাফির মুশরিকরা মতানৈক্য করে থাকে। অথচ কুরআন শরীফ, হাদীছ শরীফ, ইজমা ও ক্বিয়াস দ্বারাই সাইয়্যিদুল মুরসালীন, ইমামুল মুরসালীন, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক



চাঁদ না দেখে কোনভাবেই ঈদ পালন করা যাবে না


চাঁদ সম্পর্কিত মাসায়িল: এখানে কেবল কয়েকটি জরুরী মাসয়ালা দেয়া হল। ১। সারাবিশ্বে একই দিনে রোযা ও ঈদ শুরু হতে পারে না। কারণ একই দিনে সারাবিশ্বে চাঁদ দৃষ্টিগোচর হওয়া অসম্ভব। অক্ষাংশ ও দ্রাঘিমাংশের সময়ের ব্যবধান অনুযায়ী চাঁদের হুকুম হবে এবং চাঁদ দেখা



জামাত হিন্দুদের রথযাত্রার জন্য হরতাল শিথিল করল অথচ রোযাদার মুসলমানদের জন্য সকাল-সন্ধ্যা হরতাল!


কুখ্যাত ধর্মব্যবসায়ী জামাতের হাক্বীক্বত বুঝতে আর কী বাকি থাকলো? ‘ইসলামী’ নামধারী ধর্মাশ্রয়ী জামাত হিন্দুদের রথযাত্রার জন্য হরতাল শিথিল করল অথচ রোযাদার মুসলমানদের জন্য সকাল-সন্ধ্যা হরতাল! পবিত্র রমযান শরীফ উনার সম্মান, মর্যাদা, পবিত্রতা রক্ষার বিষয়ে পবিত্র কালামুল্লাহ শরীফ, পবিত্র হাদিছ শরীফ উনাদের



যুক্তরাজ্যে মুসলিম চিকিৎসকের অবদান অন্ধত্ব দূর করতে নতুন উদ্ভাবন


যুক্তরাজ্যে মুসলিম বিজ্ঞানী রবিন আলী স্টেমসেলের মাধ্যমে চোখের আলোকসংবেদী কোষগুলোকে পাল্টে দিয়ে অন্ধত্ব দূর করার সম্ভাবনা দেখতে পেয়েছন। বিজ্ঞান সাময়িকী ‘নেচার’এ প্রকাশিত একটি নিবন্ধের বরাত দিয়ে বিবিসি জানিয়েছে, এই গবেষণাকে অন্ধত্ব নিরাময়ের পথে বড় একটি অগ্রগতি বলে মনে করছেন রবিন আলী।



বানর থেকে কোন মানুষ আসে নি, শুধু নাস্তিকরাই এসেছে (তাদের ভাষ্যমতে)


অনেকে বলে, অমক বানরের সাথে, অমক হনুমানের সাথে মানুষের ডিএনএ-র মিল পাওয়া গেছে। তাই তারা ধরেই নেয়, তাদের আদি পিতা হচ্ছে বানর বা হনুমান। কত্ত বড় উজবুক! যারা এরূপ বলে, তাদের কাছে ক্লাস ওয়ানের বাচ্চারও প্রশ্ন হতে পারেঃ ১) একটা বানর



আজ ব্যাংক খোলা


আজ শনিবার হলেও ব্যাংক খোলা রয়েছে। কাল হরতাল, এজন্যই খোলা রাখা হয়েছে মনে হয়। একটু আগে সোনালী ব্যাংকে টাকা জমা দিলাম



বাংলাদেশকে না জানিয়ে ভারতের সমীক্ষা


বাংলাদেশকে না জানিয়ে নারায়ণগঞ্জে একটি কনটেইনার টার্মিনাল নির্মাণের সমীক্ষা চালাতে দরপত্র আহ্বান করেছে ভারত। ওই সমীক্ষায় কনটেইনার টার্মিনালের কারিগরি ও বাণিজ্যিক দিক খতিয়ে দেখা হবে। ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইটে দেখা গেছে, কনটেইনার টার্মিনালের সমীক্ষা নিয়ে ১০ মে এক দরপত্র প্রকাশ করা



ওকলাহোমায় টর্নেডোর আঘাতে নিহত ৯১


news link যুক্তরাষ্ট্রের ওকলাহোমা অঙ্গরাজ্যের ওকলাহোমা সিটির মুর শহরতলিতে গতকাল সোমবার একটি শক্তিশালী টর্নেডো আঘাত হেনেছে। তিন কিলোমিটার চওড়া এই টর্নেডোর আঘাতে অন্তত ৯১ জন নিহত হয়েছে। আহত হয়েছে শতাধিক ব্যক্তি। বিবিসি অনলাইনে প্রকাশিত প্রতিবেদনে জানানো হয়, ধ্বংসস্তূপের নিচে অনেকে আটকা



নির্বিচারে গুলি করে হত্যা করা কখনোই সমর্থনযোগ্য নয়


আন্দোলন যতই স্বার্থ-বিরোধী হোক না কেন, নির্বিচারে হত্যা কখনোই সমর্থনযোগ্য নয়। যদি জামাত-বিএনপি-হেফাজত-আওয়ামীলিগ রাস্তায় কখনো নিরপরাধ মানুষের গাড়ি, দোকান-পাট ভাংচুর বা আগুন জ্বালায়, সেটাও যেমন সমর্থনযোগ্য নয়। তেমনি আন্দোলনরত মানুষকে গণহত্যা কখনোই কাম্য নয়। যদিও হেফাজতীরা বদ আকিদা পোষণ করায় আমি