White Flower -blog


gulame ahlebait alaihimus salam


 


আদর্শ মায়ের পরিচয় কি ?


আদর্শ মায়ের পরিচয় কি ? একজন আদর্শ মায়ের পরিচয় হল তিনি পরিপূর্ণ খাঁটি মুসলমান হবেন । সম্মানীত শরিয়ত উনার বিধি বিধান সব মেনে চলবেন । সম্মানীত সুন্নত মুবারক অনুযায়ী জীবন যাপন করবেন । ফাসেকি কাজ ও গুনাহ থেকে বেঁচে থাকার চেষ্টা



নারী পুরুষ সকলেরই তালাক সংক্রান্ত মাসয়ালা জানা উচিৎ ।


একজন পরিচিত মহিলা ফোন দিয়েছেন । ফোন রিসিভ করলাম । অপর প্রান্ত থেকে মহিলা বললেন ,একটি মাসয়ালা জানা প্রয়োজন । আমি বললাম , বলুন আমার জানা থাকলে বলে দিবো । তখন মহিলাটি বললেন যে, তার ননদকে তালাক দেয়া হয়েছে । ননদের



সম্মানীত ইসলাম’ নারীকে দিয়েছেন পরিপূর্ণ সম্মান ও অধিকার


সম্মানীত ইসলাম’ নারীকে দিয়েছেন পরিপূর্ণ সম্মান ও অধিকার । কিন্তু নারী সে সম্মানকে ধুলায় লুণ্ঠিত করেছে , পদদলিত করেছে । অধিকাংশ নারী তার ন্যায্য অধিকারকে অবহেলায় পদদলিত করে পরপুরুষের হাতের রুমাল হয়ে থাকতে তারা পছন্দ করে । নিজের ঘরের স্বাধীনতা তাদের



মুসলমানের প্রতিবাদের ভাষা ও নেই । শত আফসুস ।


আজকে এক তালিমের মজলিশে গিয়েছিলাম । সেখানে এক মহিলা আমাকে বললেন, ” জানেন আপা সরকার পহেলা বৈশাখ উপলক্ষে টাকা দিয়েছে ” এখন এই টাকা দিয়ে কি করা হবে ছেলে মায়ের কাছে জানতে চাছে ? ? ? প্রিয় পাঠক মুসলমান কি জবাব



তিনি পরম দয়ালু ও ক্ষমাশীল ।


মহান আল্লাহ পাক তিনি একটি নির্দিষ্ট সীমা রেখা টেনে দিয়েছেন । এই সীমা রেখা যে লঙ্ঘন করে তাকে সীমা লঙ্ঘন কারী বলে । আর সীমা লঙ্ঘন কারীকে মহান আল্লাহ পাক তিনি পছন্দ করেন না । যে বেক্তি নিজের উপর জুলুম করে



চিরন্তন সত্য কথা


জন্ম থেকে মৃত্যু পর্যন্ত যে সময় তা নির্দিষ্ট । কিন্তু সময় চলে বহতা নদীর মত । একবার চলে গেলে আর ফিরে আসে না । ঘড়ির কাঁটার মত টিক টিক করে জীবন চলে । থেমে থাকে না । থেমে যাওয়া জীবন চলে



নারীবাদীদের’নারী স্বাধীনতা’ সন্মানীত মুসলিম নারীদের স্বাধীনতার পথে অন্তরায় ।


নারীবাদীদের’নারী স্বাধীনতা’ সন্মানীত মুসলিম নারীদের স্বাধীনতার পথে অন্তরায় । কারন নারীবাদীরা ‘নারী সবাধীনতার’ যে স্লোগান দিচ্ছে তা হোল নারী পুরুষ সকলেই সমান । কিন্তু মহান আল্লাহ পাক তিনি পুরুষকে কর্তা হিসাবে পাঠিয়েছেন । গঠনগত ভাবে , স্বভাবগত ভাবে , মানুষিক দিক



পহেলা বৈশাখ পালন করা হারাম


বাংলা ১২ মাসের প্রথম মাস হোল বৈশাখ । এই বৈশাখ মাসের প্রথম দিনকে পহেলা বৈশাখ বলা হয় । অধিকাংশ মানুষের ধারনা ১ লা বৈশাখের দিন ভালো খেলে পরলে সারা বছর ভাল থাকা যায় । পবিত্র কুরআন শরিফ পবিত্র হাদিস শরিফ উনাদের



চিরন্তন সত্য কথা


জন্ম থেকে মৃত্যু পর্যন্ত যে সময় তা নির্দিষ্ট । কিন্তু সময় চলে বহতা নদীর মত । একবার চলে গেলে আর ফিরে আসে না । ঘড়ির কাঁটার মত টিক টিক করে জীবন চলে । থেমে থাকে না । থেমে যাওয়া জীবন চলে



আমরা মুসলমান


আমরা মুসলমান । আমাদের সৃষ্টি কর্তা মহান আল্লাহ পাক । আমাদের সন্মানীত নবী হলেন হুজুর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম । আর আমাদের সন্মানীত দ্বীন হোল সন্মানীত ইসলাম । সন্মানীত দ্বীন ইসলাম উনার অনুসারীদেরকেই মুসলমান বলা হয় । মহান আল্লাহ পাক



আর ও এগিয়ে যেতে হবে ।


আলহামদুলিল্লাহ অবশেষে সত্যের জয় হোল । সত্য এসেছে মিথ্যা দূরীভূত হয়েছে । নিশ্চয় মিথ্যা দূরীভূত হওয়ার যোগ্য । মুসলিম ভাই বোনেরা এগিয়ে চলুন । মহান আল্লাহ পাক তিনি বলেছেন , ” উদখুলু ফিসসিলমি কাফ-ফা ” অর্থাৎ তোমরা সন্মানীত ইসলাম উনার মধ্যে



পিতা মাতার হক


মহান আল্লাহ পাক তিনি এরশাদ মুবারক করেন , তোমরা তোমাদের পিতা মাতার হক আদায় কর । পবিত্র হাদিস শরিফ উনার মধ্যে পিতা মাতার হক আদায়ের জন্য বিশেষ ভাবে বলা হয়েছে । কিন্তু বর্তমানে মুসলিম সন্তানেরা পিতা মাতার হক কতটুকু জানেন এবং