Archive for the ‘শিক্ষা’ Category

পাঠ্যপুস্তকে দ্বীন ইসলাম উনার শিক্ষা ও ঈমানী চেতনা সমৃদ্ধ লেখনী অন্তর্ভুক্ত করতে হবে


জাতীয় শিক্ষাক্রম ও পাঠ্যপুস্তক বোর্ড প্রণীত বইসমূহে সম্মানিত পবিত্র দ্বীন ইসলাম উনার ব্যাপারে প্রচুর ভুল তথ্য তো রয়েছেই; পাশাপাশি রয়েছে পবিত্র দ্বীন ইসলাম উনার প্রতি বিদ্বেষমূলক কথা-বার্তা এবং বহু আক্বীদাগত ও তথ্যগত ভুলের ছড়াছড়ি। এছাড়াও রয়েছে কাফির-মুশরিকদের জীবন ও কর্মের অহেতুক

ভারতে ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠা করতে দেয়া হয় নি; অথচ এদেশে…!!


ভারতে একটি বিশাল জনগোষ্ঠী হচ্ছে মুসলমান, যা মোট জনগোষ্ঠীর প্রায় অর্ধেক। তারপরেও সেখানকার মুসলমানগণ একটি ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার অনুমতি পায় না। সম্প্রতি ভারতের অন্ধ্রপ্রদেশে হীরা ইসলামিক ইউনিভার্সিটি নামে একটি বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার উদ্যেগ নেন কয়েকজন মুসলিম ধনাঢ্য ব্যবসায়ী। প্রতিষ্ঠানের নিজস্ব জমিতে ৭

শিশুরাও সাংস্কৃতিক আগ্রাসনের শিকার


স্যাটেলাইট টিভি, ইন্টারনেট ইত্যাদির মাধ্যমে বিজাতি-বিধর্মীদের অপসংস্কৃতি মহামারি রূপে ছড়িয়ে পড়ছে। এর দ্বারা মুসলিম তাহযীব-তামাদ্দুন আস্তে আস্তে ভুলে যাচ্ছে এদেশের জনসাধারণ। এই অপসংস্কৃতি সবচেয়ে বেশি বদ-তাছীর করছে শিশুতোষ মেধা ও মননে। এ ব্যাপারে আমি একটি বাস্তব ঘটনা বর্ণনা করছি; আমি এক

ইংরেজরা মুসলমানদের শিক্ষাব্যবস্থা ধ্বংস করেছে


ইংরেজদের প্রণীত শিক্ষানীতি সমাজে বিভক্তি ও শ্রেণীবৈষম্য সৃষ্টি করেছে বলে মন্তব্য করেছেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। গতকাল ইয়াওমুল আরবিয়া (বুধবার) ইসলামাবাদে মাদ্রাসা শিক্ষার্থীদের একটি পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে দেয়া বক্তৃতায় তিনি বলেন, নবীজী ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম সবচেয়ে বেশি শিক্ষার ব্যাপারে গুরুত্ব

সামুদ্রিক মাছের নানাবিধ উপকারিতা


সামুদ্রিক মাছের পুষ্টিগুণ মিঠা পানির মাছের তুলনায় অনেক গুন বেশি। সামুদ্রিক মাছ উচ্চ- প্রোটিন সমৃদ্ধ, এবং এতে ক্ষতিকারক ফ্যাট নেই বললেই চলে। সামুদ্রিক মাছে ওমেগা থ্রি ফ্যাটি অ্যাসিড, ভিটামিন এ এবং ভিটামিন ডি থাকে যা একাধিক জটিল রোগ থেকে আমাদেরকে দূরে

মুসলমানদের ঈমান রক্ষার্থে সম্মানিত দ্বীন ইসলাম উনার স্বপক্ষে শতভাগ শিক্ষা ব্যবস্থা ও সিলেবাস প্রণয়ন করা ফরয-ওয়াজিবের অন্তর্ভুক্ত।


মহান আল্লাহ পাক তিনি ইরশাদ মুবারক করেন, “আপনার মহান রব তায়ালা উনার নাম মুবারক স্মরণ করে পাঠ করুন যিনি সৃষ্টি করেছেন।” সুবহানাল্লাহ! নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি ইরশাদ মুবারক করেন, প্রত্যেক পুরুষ-মহিলা, জিন-ইনসান সকলের জন্য ইলম

মুশরিক পূজারীদের ছায়া থেকে সরকারি আমলাদের সরে আসতে হবে


-বছর বছর যেখানে পূজামণ্ডপ বৃদ্ধি পাচ্ছে, সেখানে বছর বছর কুরবানীর পশুর হাট কমানো হচ্ছে। -স্কুল, কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয়সহ বিভিন্ন জাতীয় প্রতিষ্ঠানে পূজার আয়োজন হচ্ছে, অথচ কুরবানীর পশুর হাটগুলোকে শহরের বাইরে জনমানবহীন প্রান্তরে নেয়া হচ্ছে। -রথযাত্রা-পূজার নামে, অমঙ্গল যাত্রার নামে দেশের গুরুত্বপূর্ণ সড়কগুলোকে

সাবধান! আপনার সন্তানকেও দূরে রাখুন- পূজার মূর্তি দেখলে সন্তানের উপর বিরূপ প্রভাব পড়তে পারে


অমুসলিমরা এক সময় তাদের নির্দিষ্ট মন্দিরে পূজা করলেও ইদানীং তাদেরকে বিভিন্ন রাস্তাঘাটে অলিগলিতে, স্কুল-কলেজের মাঠে ও বাজারে প্রকাশ্যে পূজামন্ডপ করতে দেখা যায়। যে কারণে দেখা যায় ইচ্ছা-অনিচ্ছায় মুসলমানদের অনেকেই সে সব পুজামন্ডপে যায়। এমনকি অনেকে তাদের শিশুদেরও সেখানে নিয়ে যায়। অথবা

মুসলমানদের ঈমানী পরিবেশ ও চেতনা রক্ষার্থে যত্রতত্র ও প্রকাশ্যে পূজা করা বন্ধ করতে হবে


মহান আল্লাহ পাক তিনি পবিত্র কালামুল্লাহ শরীফ উনার মধ্যে ইরশাদ মুবারক করেন, ‘নিশ্চয়ই মুশরিকরা নাপাক বা অপবিত্র’। (পবিত্র সূরা তওবা শরীফ : পবিত্র আয়াত শরীফ ২৮) বাংলাদেশের ৯৮ ভাগ অধিবাসী মুসলমান। এ দেশের রাষ্ট্র দ্বীন ইসলাম। এই ৯৮ ভাগ মুসলমান অধ্যুষিত

পূজা-উৎসবে যারা আনন্দ-উল্লাস করবে তারা কি করে মুসলমান দাবি করে?


যিনি খালিক্ব মালিক রব মহান আল্লাহ পাক তিনি উনার সম্মানিত কিতাব পবিত্র কুরআন শরীফ উনার মধ্যে কারা আল্লাহওয়ালা প্রকৃতির মানুষ আর কারা শয়তান প্রকৃতির মানুষ সেটা বর্ণনা করে দিয়েছেন। ঈমানদার-মুমিন উনাদের পরিচয় দিতে গিয়ে পবিত্র সূরা ইউনুস শরীফ উনার ৬৩ নং

আবারো নাস্তিক ও ইসলামবিদ্বেষীদের হাতেই সিলেবাস ও শিক্ষানীতি


বাংলাদেশের শিক্ষা মন্ত্রণালয় নবম ও দশম শ্রেণির ১২টি বইয়ের মধ্যে বাংলা সাহিত্য বইটি পরিমার্জনের দায়িত্ব দিয়েছে নাস্তিক্যবাদী ও চরম ইসলামবিদ্বেষী শ্যামলীকে, ইংলিশ ফর টুডে বইয়ের দায়িত্ব দিয়েছে মনজুরুলকে, বাংলাদেশ ও বিশ্বপরিচয় বইয়ের দায়িত্ব দিয়েছে আখতারুজ্জামানকে, বাংলাদেশ ও বিশ্বসভ্যতা বইয়ের দায়িত্ব দিয়েছে

প্রত্যেক জাতিই তার নিজ শত্রুকে চিনে অথচ তথাকথিত মুসলমানরা তাদের শত্রু চিনে না


খালিক্ব মালিক রব মহান আল্লাহ পাক তিনি মুসলমানদের শত্রু কারা তা সরাসরি বলে দিয়েছেন। আর নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনিও তা মুসলমানদেরকে স্পষ্টভাবে জানিয়ে দিয়েছেন। কিন্তু আজ সারাবিশ্বে মুসলমানদেরকে নিয়ে যে কুটকৌশল ও ষড়যন্ত্র চলছে তা