রঊফুর রহীম, হারীছুন আলাল মু’মিনীন, সাইয়্যিদুল মুরসালীন, ইমামুল মুরসালীন, নূরে মুজাস্সাম হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি


لَقَدْ جَآءَكُمْ رَسُوْلٌ مِّنْ أَنْفُسِكُمْ عَزِيْزٌ عَلَيْهِ مَا عَنِتُّمْ حَرِيْصٌ عَلَيْكُمْ بِالْمُؤْمِنِيْنَ رَءُوْفٌ رَّحِيْمٌ অর্থ: মহাসম্মানিত রসূল ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি তোমাদের মাঝে তাশরীফ মুবারক গ্রহণ করেছেন। তোমাদের জন্য কষ্টকর বিষয়গুলো উনার নিকট অসহনীয়। তিনি তোমাদের ভালাই চান। বিশেষ করে 

প্রতি আরবী মাসের এ মুবারক আ’দাদ শরীফ বা তারিখটি হচ্ছেন- সাইয়্যিদু সাইয়্যিদিল আ’দাদ শরীফ এবং মহাসম্মানিত ও মহাপবিত্র সাইয়্যিদুল


মহান আল্লাহ পাক তিনি ইরশাদ মুবারক করেন, ‘মহান আল্লাহ পাক উনার নিদর্শন সম্বলিত দিবসগুলিকে স্মরণ করিয়ে দিন সমস্ত কায়িনাতকে। সুবহানাল্লাহ! মহাসম্মানিত ও মহাপবিত্র ১২ই শরীফ। সুবহানাল্লাহ! নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি যেহেতু “মহাসম্মানিত ও মহাপবিত্র ১২ই 

কতিপয় সম্মাানিত সুন্নতী আমল মুবারক, যা জানা থাকলে সহজেই আমল করা যায়


মহান আল্লাহ পাক তিনি ইরশাদ মুবারক করেন, “তোমরা মহান আল্লাহ পাক উনার রসূল, নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার অনুসরণ করো, অবশ্যই তোমরা রহমত মুবারক প্রাপ্ত হবে। সুবহানাল্লাহ! (পবিত্র সূরা আন নূর শরীফ: পবিত্র আয়াত শরীফ- ৫৬) 

গাউছুল আযম সাইয়্যিদুনা হযরত বড়পীর ছাহিব রহমতুল্লাহি আলাইহি উনার পবিত্র বিছালী শান মুবারক প্রকাশ সংশ্লিষ্ট বর্ণনা


وِصَالٌ (বিছাল) অর্থ মিলিত হওয়া, সাক্ষাৎ করা। হযরত আউলিয়ায়ে কিরাম রহমতুল্লাহি আলাইহি উনারা মারা যান না। পবিত্র হাদীছ শরীফ উনার মধ্যে বর্ণিত আছে- اِنَّ اَوْلِيَاءَ اللهِ لَا يَمُوْتُوْنَ بَلْ يَنْتَقِلُوْنَ مِنْ دَارِ الْفَنَاءِ اِلٰى دَارِ الْبَقَاءِ অর্থ: “নিশ্চয়ই আউলিয়ায়ে কিরাম উনারা 

পবিত্র দ্বীন ইসলাম উনার মহান তাজদীদে পীরানে পীর, গউছুল আ’যম দস্তগীর হযরত বড়পীর ছাহিব রহমতুল্লাহি আলাইহি


মহান আল্লাহ পাক উনার এবং উনার রসূল, নূরে মুজাস্সাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনারা অসীম রহম করে, ইহসান করে মুসলিম উম্মাহ উনাদের পবিত্র ঈমান-আমল হিফাজতের জন্য, পবিত্র দ্বীন ইসলাম উনার তাজদীদের জন্য প্রতি হিজরী শতকেই একজন মহান মুজাদ্দিদ 

সাইয়্যিদুনা হযরত বড়পীর ছাহিব রহমতুল্লাহি আলাইহি বুযুর্গী-সম্মান, কামালত ও কারামত মুবারক


উনার নিজের ভাষায় উনার মর্যাদা-মরতবা: সাইয়্যিদুল আওলিয়া, মাহবূবে সুবহানী, কুতুবে রব্বানী, গাউছুল আ’যম, মুজাদ্দিদুয যামান, ইমামুর রাসিখীন, সুলত্বানুল আরিফীন, মুহিউদ্দীন, আওলাদে রসূল, সাইয়্যিদুনা হযরত বড়পীর ছাহিব রহমতুল্লাহি আলাইহি তিনি বলেন, আমি এমন এক খালিক্ব মালিক রব মহান আল্লাহ পাক উনার বান্দা; 

মক্ববূল ক্বাদিরিয়া তরীক্বা উনার শাজরা শরীফ


মুজাদ্দিদে আ’যম সাইয়্যিদুনা হযরত ইমামুল উমাম আলাইহিস সালাম উনার আযীমুশ শান নূরানী সিলসিলা মুবারক উনার মাধ্যমে বিশ্বব্যাপী হাক্বীকী শানে জারি রয়েছে- সাইয়্যিদুনা হযরত বড়পীর ছাহিব রহমতুল্লাহি আলাইহি উনার মক্ববূল ক্বাদিরিয়া তরীক্বা উনার শাজরা শরীফ খালিক্ব মালিক রব মহান আল্লাহ পাক উনার 

সুমহান বরকতপূর্ণ পবিত্র ১১ই রবীউছ ছানী শরীফ অর্থাৎ পবিত্র ফাতিহায়ে ইয়াযদাহম শরীফ। সুবহানাল্লাহ!


মহান আল্লাহ পাক তিনি ইরশাদ মুবারক করেন, ‘সাবধান! নিশ্চয় যাঁরা মহান আল্লাহ পাক উনার ওলী, উনাদের কোনো ভয় নেই এবং কোনো চিন্তা-পেরেশানীও নেই।’ সুবহানাল্লাহ! আজ সুমহান বরকতপূর্ণ পবিত্র ১১ই রবীউছ ছানী শরীফ অর্থাৎ পবিত্র ফাতিহায়ে ইয়াযদাহম শরীফ। সুবহানাল্লাহ! যা গউছুল আ’যম, 

গউছুল আ’যম, সাইয়্যিদুল আউলিয়া, ইমামে রব্বানী, মাহবুবে সুবহানী, কুতুবে রব্বানী হযরত বড়পীর ছাহিব রহমতুল্লাহি আলাইহি উনার সংক্ষিপ্ত সাওয়ানেহ উমরী


পবিত্র বিলাদতী শান মুবারক প্রকাশ: সাইয়্যিদুল আউলিয়া, গউছুল আ’যম, আওলাদে রসূল হযরত বড়পীর ছাহিব রহমতুল্লাহি আলাইহি তিনি ৪৭১ হিজরী সনে তৎকালীন ইরানের পবিত্র জিলান নগরে পবিত্র বিলাদতী শান মুবারক প্রকাশ করেন। সম্মানিত পিতা-মাতা ও নসব মুবারক: উনার পিতা উনার নাম মুবারক 

প্রসঙ্গ: মাস্ক পড়া বাধ্যতামূলক করেছে সরকার। দীর্ঘসময় মাস্ক পড়লে মানুষ আক্রান্ত হবে ফুসফুস ক্যান্সার, হৃদরোগে, ক্রণিকে। মানুষের শরীরে ঢুকবে


দেশের নাগরিকদের করোনার অজুহাত তুলে মাস্ক ব্যবহারে বাধ্যবাধকতা আরোপ করেছে সরকার। দ্বীনি প্রতিষ্ঠানে মাস্ক ব্যবহারে বাধ্যবাধকতাটি আরোপ করেছে ধর্মবিষয়ক মন্ত্রণালয়। এ সংক্রান্ত নির্দেশনা দিয়ে বিজ্ঞপ্তি জারি করেছে মন্ত্রণালয়। জারি করা নির্দেশনায় বলা হয়েছে- মসজিদে সব মুসল্লির মাস্ক পরা নিশ্চিত করতে হবে। 

মূর্তি আর ভাস্কর্য নিয়ে বিভ্রান্ত সৃষ্টিকারী ও দ্বীন ইসলাম বিকৃতকারীদের অপপ্রচারের দলীলভিত্তিক জবাব


সম্প্রতি একটি গোষ্ঠী মূর্তিকে ‘ভাস্কর্য’ আখ্যা দিয়ে নানারকম বিভ্রান্তি সৃষ্টি করছে ও মনগড়া রেফারেন্স দিয়ে দাবি করতে চায়- ‘ইসলামে নাকি মূর্তি বৈধ!’। নাউযুবিল্লাহ! নাউযুবিল্লাহ! নাউযুবিল্লাহ! এরা অত্যন্ত ঠা-া মাথায় দ্বীন ইসলাম উনাকে বিকৃত করে অপব্যাখ্যা করে যাচ্ছে। এরা বিভিন্ন ভ্রান্ত দলিল 

আপনার সন্তানকে তিনটি বিষয় শিক্ষা দিন


যামানার ইমাম ও মুজতাহিদ, মুযাদ্দিদে আ’যম সাইয়্যিদুনা মামদুহ হযরত মুর্শিদ ক্বিবলা আলাইহিস সালাম তিনি বলেন, একজন সন্তান তার জন্মের পর তার পিতা-মাতার দায়িত্ব ও কর্তব্য হলো প্রথমেই তাকে তিনটি বিষয় শিক্ষা দেওয়া। প্রথম শিক্ষা হলো: ১। মহান আল্লাহ পাক তিনি ইরশাদ