নামাজ পড়ুন… 🌸🌿🌼🍃


আপনার জীবনে যাই ঘটুক না কেন নামাজ পড়ুন। আপনি যে পাপই করেন না কেন, যত পরিমাণই করেন না কেন, নামাজ পড়ুন। কোন অজুহাত দেখাবেন না। কোন কোন বোন এসে বলেন, ভাই, আমি তো হিজাব পরি না। আমি তাকে বলি, নামাজ পড়ুন। 

একজন সাইকোপ্যাথের কবলে গোটা ভারতবর্ষ !


প্রত্যেক সচেতন ভারতীয়দের এই বিষয়টি বুঝতে হবে যে তাদের জন্মভূমি এক গভীর চক্রান্তের শিকার এবং দেশটি পরিচালনা করছে একজন সাইকোপ্যাথ।   একজন সাইকোপ্যাথকে চেনার লক্ষণগুলি কি কি ?   ১। আন্তরিকতা ছাড়াই খুব সহজে এবং কনফিডেন্টলি কথা বলার বৈশিষ্ট রাখে।   

বয়লিং ফ্রগ সিনড্রোম ও মুসলিমদের প্রতিবাদহীনতা


একটা ব্যাঙকে যদি আপনি একটি পানি ভর্তি পাত্রে রাখেন এবং পাত্রটিকে উত্তপ্ত করতে থাকেন তবে ব্যাঙটি পানির তাপমাত্রার সাথে সাথে নিজের শরীরের তাপমাত্রার ভারসাম্য বজায় রাখতে থাকে। ব্যাঙটি লাফ দিয়ে ওই পাত্র থেকে বেরোনোর পরিবর্তে পানির উত্তাপ সহ্য করতে থাকে।   

” সন্ত্রাসবাদ একটি বিভ্রান্তির নাম “


সউদী আরব এবং ইসলামিক স্টেট এই দুইই সালাফি আদর্শে বিশ্বাসী রাজনৈতিক প্রতিষ্ঠান। যে আল-কায়েদা থেকে অনুপ্রেরণা নিয়ে আইএস-এর জন্ম, সেই আল-কায়েদার জন্ম হয়েছে সউদী আরবেরই প্রত্যক্ষ্য সহযোগিতায়। সউদী আরবপন্থি সালাফিদের সাথে আল-কায়েদাপন্থি সালাফিদের প্রধান মতপার্থক্যের বিষয় মধ্যপ্রাচ্যে মার্কিন সেনাবাহিনীর উপস্থিতি। এভাবেই 

পৃথিবীর ইতিহাসে একমাত্র ব্যক্তিত্ব যিনি ……………………..


=>পৃথিবীর ইতিহাসে উল্লেখযোগ্য একমাত্র ব্যক্তিত্ব যিনি এ যামানায় সম্ভব সকল সুন্নত পালন করে থাকেন। => পৃথিবীর ইতিহাসে একমাত্র ব্যক্তিত্ব যিনি ঈদে মীলাদুন্নবী ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামকে “সাইয়্যিদুল আ’ইয়াদ ” তথা সর্বশ্রেষ্ঠ ঈদ বলে ঘোষনা দেন। => পৃথিবীর ইতিহাসে একমাত্র ব্যক্তিত্ব যিনি 

ব্রিটিশ আমলে ইংরেজি শিখলেই কী মুসলমানরা উদ্ধার হয়ে যেতো? (১)


উপমহাদেশের, বিশেষত বাংলাদেশের প্রচলিত ইতিহাসের বইগুলোতে মুসলমানদের তাচ্ছিল্য ও হিন্দুদের প্রশংসা শুরু হয় ব্রিটিশ আমলে হিন্দুদের দ্বারা ইংরেজি শিক্ষা গ্রহণ করা নিয়ে। এই এক ছুতো ধরে হিন্দু সম্প্রদায়কে শিক্ষানুরাগী, জ্ঞানী, প্রগতিশীল এসব উপাধি দিতে দিতে রীতিমতো আকাশে তুলে ফেলা হয়, আর 

ক্ষুদ্র জ্ঞান দিয়ে মহান আল্লাহ পাক উনার কুদরতের ব্যাখ্যা না খুঁজে মহান আল্লাহ পাক উনার নিকট আত্মসমর্পন করাই বুদ্ধির


বিজ্ঞান জ্ঞানের বড়াই করে। জ্ঞানের কতটুকু বিজ্ঞানের কাছে আছে। বিজ্ঞান বাস্তবতার নিরিখ করে তাই ঘোষণা করে। একটি সরষে দানার মধ্যে কী করে একটি পুরা গাছের নিঁখুত বৃত্তান্ত রেকর্ড থাকে তা কী বিজ্ঞান বলবে? অলৌকিক ঘটনার ব্যাখ্যা বিজ্ঞানীদের অজানা। আসলে মহান আল্লাহ 

ঈমানদার আর কাফির কি করে বন্ধু হয়?


এক মুসলমান অন্য মুসলমানের ভাই। আর ইহুদী-নাছারা ও কাফির-মুশরিকরা মুসলমানগণের শত্রু। এ শত্রুতা আজকের নয়। পবিত্র দ্বীন ইসলাম উনার শুরু থেকেই এ শত্রুতা। পবিত্র দ্বীন ইসলাম উনাকে পৃথিবী থেকে মিটিয়ে দিতে প্রতিনিয়ত যুদ্ধ করে যাচ্ছে পবিত্র দ্বীন ইসলাম উনার শত্রুরা। শত 

ইলম ছাড়া কোনো ব্যক্তি বা জাতি উন্নতি করতে পারে না। আর ইলমের ভাণ্ডার হলেন ‘পবিত্র কুরআন শরীফ’


ইলম হলো আমলের ইমাম। তাহলে ইলমের গুরুত্বটা কতটুকু? ইলম ছাড়া কি কোনো আমল হতে পারে? এজন্য নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি ইলম অর্জনের উপর এতো তাগিদ দিয়েছেন। ইলমকে করেছেন মর্যাদায় অধিষ্ঠিত। নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক 

হিটলার পৃথিবীটাকে ইহুদী হায়েনাদের কাছ থেকে মুক্ত করতে চেয়েছিল ॥ আজ কী তাই প্রমাণিত হচ্ছে না যে সে ভুল


দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধে হিটলার ৬০ লক্ষ কুচক্রী ইহুদীদের খতম করে কোনো ভুল করেনি, গুটিকয়েক ইহুদী আজ তাই প্রমাণ করছে। হিটলার চেয়েছিল পৃথিবীটাকে অশান্তি সৃষ্টিকারী ইহুদীদের হাত থেকে মুক্ত করতে। সম্মিলিত পশ্চিমা হায়েনাদের কারণে তা সম্ভব হয়নি। সন্ত্রাসের মাধ্যমে সৃষ্ট সন্ত্রাসী পরগাছা ইহুদী 

ঝিনুক তার মূল্যবান মুক্তা লুকাতে ও রক্ষা করতে জানে, মানুষ তার মহামূল্যবান নারীকে প্রদর্শনী করে বেড়ায়।


মানুষ তার সবচেয়ে মূল্যবান জিনিস সবচেয়ে বেশি হিফাযতে রাখে। এটা মানুষের সভাবজাত, তেমনি প্রকৃতি তার মূল্যবান জিনিসগুলি অতিযতেœ সকলের অগচরে কঠিন আবরণে লুকিয়ে রাখে। যেমন মুক্তা। ঝিনুকের যখন কোনো কিছু থাকে না অর্থাৎ শূন্য থাকে, তখন উহা সাগরে বা নদীতে ভাসমান 

” সন্ত্রাসবাদ একটি বিভ্রান্তির নাম “


সউদী আরব এবং ইসলামিক স্টেট এই দুইই সালাফি আদর্শে বিশ্বাসী রাজনৈতিক প্রতিষ্ঠান। যে আল-কায়েদা থেকে অনুপ্রেরণা নিয়ে আইএস-এর জন্ম, সেই আল-কায়েদার জন্ম হয়েছে সউদী আরবেরই প্রত্যক্ষ্য সহযোগিতায়। সউদী আরবপন্থি সালাফিদের সাথে আল-কায়েদাপন্থি সালাফিদের প্রধান মতপার্থক্যের বিষয় মধ্যপ্রাচ্যে মার্কিন সেনাবাহিনীর উপস্থিতি। এভাবেই