Posts Tagged ‘হজ্জ’

ওহাবী সউদী সরকারের চাঁদের তারিখ হেরফের ॥ ফের চুরিতে ধরা পড়লো সউদী ওহাবী সরকার


ইহদী বংশদ্ভুদ সৌদি ওহাবীরা হজ্জ নষ্ট করার জন্য চাঁদের তারিখ নিয়ে যে ষড়যন্ত্র করেছে সেটা হাতে নাতে ধরা পরে গেলো। দেখুন তাদের ওয়েবসাইটে ০২/০৯/২০১৬ জুমুয়াবার প্রথমে তারিখ দিয়েছেলো যিলহজ্জ উনার ১ তারিখ (http://bit.ly/2c9knZL) কিন্তু ১ তারিখ দিলে ১১ সেপ্টেম্বর ঈদ হয়,

চাঁদ না দেখে যিলহজ্জ মাস শুরু করলে হাজী সাহেবদের হজ্জ ও তার সংশ্লিষ্ট কোনো আমলই শুদ্ধ হবে না


সউদী আরবে পবিত্র যিলহজ্জ মাস সঠিক তারিখে চাঁদ দেখে শুরু না করলে পবিত্র আরাফা উনার ময়দানে উপস্থিত থাকার ফরয, মুজদালিফায় থাকার ওয়াজিব, কঙ্কর নিক্ষেপ করার ওয়াজিব, কুরবানী করার ওয়াজিব, চুল কাটার ওয়াজিব, তাওয়াফে যিয়ারত ও ইহরাম খোলার ফরযসহ সকল আমলসমূহ হাজী

সিসি ক্যামেরা সরিয়ে পাপাচার মুক্ত পবিত্র হজ্জ করার ব্যবস্থা করুন


সউদী ওহাবী সরকার পবিত্র মক্কা শরীফ ও পবিত্র মদীনা শরীফ উনাদেরকে সন্ত্রাস মুক্ত রাখা ও সন্ত্রাসী চিহ্নিতকরণের অজুহাতে পবিত্র কুরআন শরীফ ও পবিত্র হাদীছ শরীফ উনাদের খিলাফ করে পবিত্র মক্কা শরীফ ও পবিত্র মদীনা শরীফ-এ সিসি ক্যামেরা ফিট করেছে। ছবি তোলা

মাদকাসক্ত অবস্থায় এবং প্রসাব দিয়ে অযু করলে যদি ফরয নামাজ না হয় তাহলে বেপর্দা হয়ে এবং হারাম ছবি তুলে কিভাবে হজ্জ হবে?


হজ্জ একটি ফরয ইবাদত। আর এ হজ্জ পালন করতে গেলে তার নিয়মকানুন পুরোপুরি মানতে হবে। পুরন করতে হবে পূর্বশর্ত। যেকোনও ইবাদত পালন করার আগে তার শর্ত পূরণ করতে হয়। শর্ত পূরা না হলে সে আমল কখনও কবুলযোগ্য হয়না। আরও উল্টো শাস্তি

সউদী ওহাবী ইহুদী সরকারের মিথ্যা চাঁদ দেখার দাবীর কারণে ১৪৩৫ হিজরীর হাজীদের হজ্জ বাতিল হতে যাচ্ছে


আমরা বাংলাদেশে পবিত্র ঈদুল ফিতর পালন করেছি ২৯শে জুলাই ২০১৪ ঈসায়ী, মঙ্গলবার। তার মানে, আমরা চাঁদ দেখেছিলাম ২৮শে জুলাই ২০১৪ ঈসায়ী, সোমবার দিবাগত সন্ধ্যায়। আপনারা জানেন, আমাদের একদিন পূর্বে সউদী আরব ঈদ পালন করেছিল। এদিকে আমরা পবিত্র যিলক্বদ মাসের চাঁদ খুঁজেছিলাম

পবিত্র রওযা শরীফ যিয়ারত করা পবিত্র হজ্জ কবুল হওয়ার শর্ত এবং পবিত্র হজ্জ করে পবিত্র রওযা শরীফ যিয়ারত না করে ফিরে আসা বেঈমান হওয়ার কারণ


মহান আল্লাহ পাক তিনি ইরশাদ মুবারক করেন, ‘তোমরা নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার খিদমত মুবারক করো, উনাকে সম্মান করো এবং সকাল-সন্ধ্যা উনার ছানা-ছিফত মুবারক বর্ণনা করো।’ নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি

একজন মহাকাশ বিজ্ঞানীর সাংবাদিক সম্মেলন


উপস্থিত সাংবাদিকবৃন্দ, আপনারা জানেন পৃথিবীর কোন অংশে যখন রাত থাকে তখন অন্য প্রান্তে থাকে দিন। যেমন ইন্দোনেশিয়াতে যখন সকাল হতে থাকে তখন কলাম্বিয়াতে সূর্য অস্ত যেতে থাকে। এখন কলাম্বিয়া যদি তাদের সন্ধ্যায় চাঁদ দেখে, তখন কিন্তু ইন্দোনেশিয়া ঈদ পালন করতে পারবে

১৪৩৪ হিজরীর যিলহজ্জ মাসের চাঁদ দেখা নিয়ে সউদী আরব মুসলিম বিশ্বের সাথে প্রতারণা করেছে


মহান আল্লাহ পাক তিনি ইরশাদ মুবারক করেন,”মহান আল্লাহ পাক উনার লা’নত মিথ্যাবাদীদের উপর।” ( সূরা আল ইমরান: আয়াত শরীফ ৬১)  আখিরী রসূল, নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি ইরশাদ মুবারক করেন, “যে ধোঁকা দেয়, সে আমার উম্মতের অন্তর্ভুক্ত

দায়িমী কোনো ফরয তরক করে পবিত্র হজ্জ পালন করা জায়িয নেই


পর্দা করা এবং ছবি তোলা বর্জন করা দায়িমীভাবে অর্থাৎ সার্বক্ষণিকভাবে ফরয। অপরদিকে শর্ত সাপেক্ষে জীবনে একবার পবিত্র হজ্জ করা ফরয। স্মরণীয় যে, খালিক্ব মালিক রব মহান আল্লাহ পাক তিনি পবিত্র হজ্জে গমনকারীদের ক্ষেত্রে শর্তারোপ উল্লেখ করে ইরশাদ মুবারক করেন, “যাদের উপর

মুসলমানদের পবিত্র হজ্জ নষ্টকরণে ‘নিরাপত্তা’র নামে সিসি ক্যামেরার ব্যবহার ইহুদী-খ্রিস্টানদের গভীর ষড়যন্ত্র


পবিত্র হজ্জকে বলা হয় জামিউল ইবাদত। সামর্থ্যবানদের উপর জীবনে একবার পবিত্র হজ্জ করা ফরয। মুসলমানদের চিরশত্রু ইহুদী-খ্রিস্টানদের চক্রান্ত এখানেও থেমে নেই। পবিত্র কালামুল্লাহ শরীফ-এ খালিক্ব মালিক রব মহান আল্লাহ পাক তিনি ইরশাদ মুবারক করেন, “আহলে কিতাবদের (ইহুদী-খ্রিস্টানদের) অধিকাংশ চায় কি করে

চলুন Tune করি হাদিসের ডাটাবেসে


চলুন Tune করি হাদিসের ডাটাবেসে সম্প্রতিকালে বাংলার তথ্যপ্রযুক্তির জগতে তুমুল জনপ্রিয় web portal হলো টেক- Tune।এটা নিঃদ্ধিধায় অনস্বীকার্য যে tech world-এর প্রতিদিন অসংখ্য অজানা তথ্য টেকটিউনস আমাদের উপহার দিয়ে চলছে। আমি বলি টেকটিউনস শুধুমাত্র প্রযুক্তির কথন নয় এটি বাংলাভাষীর জন্য খোদিত

হজ্জ, উমরাহ, যিয়ারত ও কুরবানী সম্পর্কিত সুওয়াল-জাওয়াব


সুওয়াল : ওকুফে আরাফা বা আরাফার ময়দানে অবস্থান করা হজ্জের অন্যতম ফরয। কবে এবং কোন সময় তথায় উপস্থিত হলে ফরয আদায় হবে? জাওয়াব: ৯ই যিলহজ্জ সূর্য ঢলার পর থেকে ১০ই যিলহজ্জ সুবহে ছাদেকের পূর্ব পর্যন্ত যে কোনো সময় আরাফার ময়দানে অবস্থান