অবৈধ জন্ম নেয়া সন্ত্রাসবাদী কাফির গোষ্ঠী আবারো হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার মুবারক শানে ব্যঙ্গচিত্র প্রকাশ করে আবারো চরম ধৃষ্টতা দেখাল!


অস্পৃশ্য, নাপাক, যবন, ম্লেচ্ছ, অবৈধ জন্ম নেয়া সন্ত্রাসবাদী কাফির গোষ্ঠী আবারো হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার মুবারক শানে চরম বেয়াদবী করল! এবার ব্যঙ্গচিত্র প্রকাশ করল সন্ত্রাসবাদী ফ্রান্সের একটি সাপ্তাহিক ম্যাগাজিন।  সন্ত্রাসবাদী যুক্তরাষ্ট্রে হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার সুমহান শানে কটাক্ষ করে চলচ্চিত্র নির্মাণের জেরে যখন বিশ্বজুড়ে সহিংসতা ছড়িয়ে পড়েছে, তখন বুধবার ফ্রান্সের ব্যঙ্গাত্মক সাপ্তাহিক ম্যাগাজিন ‘চার্লি হেবদো’তে এই ব্যঙ্গচিত্র প্রকাশ করা হলো।

এ নিয়ে সহিংসতার আশঙ্কায় ম্যাগাজিনটির অফিসের সামনে মোতায়েন করা হয়েছে বিপুলসংখ্যক দাঙ্গা পুলিশ।

ফ্রান্সের পররাষ্ট্রমন্ত্রী লরেন্স ফ্যাবিয়াস এই ঘটনার প্রেক্ষিতে বিভিন্ন দেশে ফ্রান্সের দূতাবাসগুলোতে নিরাপত্তা জোরদারের নির্দেশ দিয়েছে।

ম্যাগাজিনটিতে প্রকাশিত কার্টুনে দেখানো হয়, এক অস্পৃশ্য, নাপাক, যবন, ম্লেচ্ছ, অবৈধ জন্ম নেয়া ইহুদি হুইল চেয়ারে বসা পাগড়িপরা একজন ব্যক্তিকে ঠেলছে। এছাড়া ম্যাগাজিনটির ভেতরে হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনাকে ব্যঙ্গ করে আরো বেশ কিছু ছবিও ছাপানো হয়েছে বলে জানিয়েছে রয়টার্স। (নাউযুবিল্লাহ!)

ম্যাগাজিনটির প্রচ্ছদে ছাপা কার্টুনটিতে আরো দেখা যায়, অস্পৃশ্য, নাপাক, যবন, ম্লেচ্ছ, অবৈধ জন্ম নেয়া ইহুদিটি হুইলচেয়ারে বসা পাগড়িপরা ব্যক্তিকে বলছে, “আপনি নিশ্চই তামাশা করছেন না।” এবং ছবিটির হেডলাইনে লেখা রয়েছে ‘ইনটাচ‌্যাবল ২’ (অস্পৃশ্য ২)। নাউযুবিল্লাহ!

ব্যঙ্গচিত্রটি এমন এক সময়ে প্রকাশ হলো যখন সন্ত্রাসবাদী যুক্তরাষ্ট্রে তৈরি ইসলাম অবমাননাকর চলচ্চিত্রটি নিয়ে সারা বিশ্বে তীব্র মার্কিনবিরোধী বিক্ষোভ চলছে। এখন পর্যন্ত এই বিক্ষোভের জেরে প্রাণ হারিয়ে শহীদ হয়েছেন এবং এখনো নির্যাতিত হচ্ছেন হাজার হাজার মুসলিম।

ফরাসি ম্যাগাজিনটির এই ঘৃণ্য প্রচেষ্টা নতুন নয়। এর আগেও গত নভেম্বরে ম্যাগাজিনটি হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার আরেকটি ব্যঙ্গচিত্র ছাপায়, যা বিশ্বজুড়ে তীব্র আলোড়ন তৈরি করে। ‍এছাড়া ২০০৫ সালে ডেনমার্কের একটি পত্রিকায় হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার কটাক্ষ করে ছাপানো একটি কার্টুনের জেরে মুসলিম বিশ্বে তীব্র প্রতিক্রিয়া দেখা দেয়। সে সময় এর প্রতিবাদ করতে গিয়ে অনেক মুসলিম শহীদ হয়।

তথ্য সূত্র রয়টার্স।

মূল খবর

অস্পৃশ্য যবন ম্লেচ্ছ অবৈধ জন্ম নেয় সন্তান ‌’বাসিল’ সহ এসব এসব কুলাঙ্গারদের মৃত্যুদণ্ড না হওয়া পর্যন্ত বিক্ষোভ ও প্রতিবাদ করা মুসলমানেদর জন্য ঈমানী দায়িত্ব তথা ফরয।
যারা এর প্রতিবাদ করবেনা, নিজেদের মন-মনন থেকে ওইসকল কুলাঙআগারদের বিরুদ্ধে ঘৃণা প্রকাশ করবেনা তারা মুসলমান হতে পারে না। যারা এর প্রতিবাদ করবেনা, কাফিরদের গযব তাদের উপরও পড়তে পারে।

শেয়ার করুন
TwitterFacebookGoogle+

৩ Comments

Leave a Reply

[fbls]
  1. আয় আল্লাহ পাক।
    কাফিরদের এত শয়তানী মুসলমানগণ আর সহ্য করতে পারছেননা।
    আপনি কাফিদরদেরকে চিরতরে নিশ্চিহ্ন করে দিন।
    আমিন।।।

  2. drohanol says:

    এ গুলিকে টুকরা টুকরা করা দরকার।