হযরত উম্মাহাতুল মু’মিনীন আলাইহিন্নাস সালাম উনাদের সম্মানিত জবান মুবারক-এ উম্মুল মু’মিনীন সাইয়্যিদাতুনা হযরত আস সাবি‘য়াহ্ আত্বওয়ালু ইয়াদান আলাইহাস সালাম উনার সম্মানিত প্রশংসা মুবারক


উম্মুল মু’মিনীন আছ ছালিছাহ্ সাইয়্যিদাতুনা হযরত ছিদ্দীক্বাহ্ আলাইহাস সালাম তিনি বলেন,
وَلَمْ أَرَ امْرَأَةً قَطُّ خَيْرًا فِي الدِّينِ مِنْ اُمِّ الْمُؤْمِنِيْنَ السَّابِعَةِ سَيِّدَتِنَا حَضْرَتْ اَطْوَلُ يَدًا عَلَيْهَا السَّلَامُ (سَيِّدَتَنَا حَضْرَتْ زينب عَلَيْهَا السَّلَامُ). وَأَتْقَى لِلَّهِ وَأَصْدَقَ حَدِيثًا، وَأَوْصَلَ لِلرَّحِمِ، وَأَعْظَمَ صَدَقَةً، وَأَشَدَّ ابْتِذَالًا لِنَفْسِهَا فِي الْعَمَلِ الَّذِي تَصَدَّقُ بِهِ، وَتَقَرَّبُ بِهِ إِلَى اللهِ تَعَالَى
অর্থ: “আমি উম্মুল মু’মিনীন সাইয়্যিদাতুনা হযরত আস সাবি‘য়াহ্ আলাইহাস সালাম উনার চেয়ে অধিক দ্বীনদার, অধিক পরহেযগার, অধিক সত্যভাষী, অধিক উদার, অধিক দানশীল, সৎকর্মশীল এবং যিনি খালিক্ব মালিক রব মহান আল্লাহ পাক উনার সম্মানিত রেযামন্দি-সন্তুষ্টি মুবারক হাছিলের লক্ষ্যে বেশি তৎপর কাউকে দেখিনি।” সুবহানাল্লাহ! (মুসলিম শরীফ, নাসায়ী শরীফ, আল মু’জামুল আওসাত্ব লিত ত্ববারনী ৯/৮৮)
উম্মুল মু’মিনীন আছ ছালিছাহ্ সাইয়্যিদাতুনা হযরত ছিদ্দীক্বাহ্ আলাইহাস সালাম তিনি আরো বলেন,
ما رأيت امرأة قط، خيرا في الدين من اُمِّ الْمُؤْمِنِيْنَ السَّابِعَةِ سَيِّدَتِنِا حَضْرَتْ اَطْوَلُ يَدًا عَلَيْهَا السَّلَامُ (سَيِّدَتَنِا حَضْرَتْ زينب عَلَيْهَا السَّلَامُ).
অর্থ: “আমি উম্মুল মু’মিনীন সাইয়্যিদাতুনা হযরত আস সাবি‘য়াহ্ আত্বওয়ালু ইয়াদান আলাইহাস সালাম উনার চেয়ে অধিক দ্বীনদার কোনো মহিলা দেখিনি।” সুবহানাল্লাহ! (উস্দুল গবাহ্ ৬/১২৭, সিয়ারু আ’লামিন নুবালা’ ৩/৪৭৪)
মহাসম্মানিত ও মহাপবিত্র হাদীছ শরীফ উনার মধ্যে ইরশাদ মুবারক হয়েছে,
عَنْ عَائِشَةَ قَالَتْ: يَرْحَمُ اللَّهُ اُمَّ الْمُؤْمِنِيْنَ السَّابِعَةَ سَيِّدَتَنَا حَضْرَتْ اَطْوَلُ يَدًا عَلَيْهَا السَّلَامُ (سَيِّدَتَنَا حَضْرَتْ زينب عَلَيْهَا السَّلَامُ) لَقَدْ نَالَتْ فِي هَذِهِ الدُّنْيَا الشَّرَفَ الَّذِي لا يَبْلُغُهُ شَرَفٌ. إِنَّ اللَّهَ زَوَّجَهَا نَبِيَّهُ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ فِي الدُّنْيَا وَنَطَقَ بِهِ الْقُرْآنُ. وَإِنَّ رَسُولَ اللَّهِ قَالَ لَنَا وَنَحْنُ حَوْلَهُ: أَسْرَعُكُنَّ بِي لُحُوقًا أَطْوَلُكُنَّ بَاعًا. فَبَشَّرَهَا رَسُولُ اللَّهِ بِسُرْعَةِ لُحُوقِهَا بِهِ.
অর্থ: “যিনি খালিক্ব মালিক রব মহান আল্লাহ পাক তিনি উম্মুল মু’মিনীন আস সাবি‘য়াহ্ সাইয়্যিদাতুনা হযরত আত্বওয়াল ইয়াদান আলাইহাস সালাম উনার প্রতি অবিরত ধারায় সম্মানিত রহমত মুবারক বর্ষণ করছেন! অবশ্যই নি:সন্দেহে তিনি কায়িনাতের বুকে এমন বেমেছাল সীমাহীন সম্মান-ইজ্জত ও মর্যাদা-র্মতবা মুবারক হাছিল করেছেন, যেটা আর কেউ হাছিল করতে পারেনি। সুবহানাল্লাহ! স্বয়ং যিনি খালিক্ব মালিক রব মহান আল্লাহ পাক তিনি নিজে উনার মহাসম্মানিত নবী, মাহবূব হাবীব, সাইয়্যিদুল মুরসালীন, ইমামুল মুরসালীন, নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার সাথে উম্মুল মু’মিনীন আস সাবি‘য়াহ্ সাইয়্যিদাতুনা হযরত আত্বওয়াল ইয়াদান আলাইহাস সালাম উনার মহাসম্মানিত নিসবতে ‘আযীম শরীফ (শাদী মুবারক) দিয়েছেন এবং তিনি উনার বেমেছাল সীমাহীন সম্মান-ইজ্জত ও মর্যাদা-মর্তবা মুবারক সম্পর্কে মহাসম্মানিত ও মহাপবিত্র কুরআন শরীফ উনার মধ্যে আলোচনা মুবারক করেছেন। সুবহানাল্লাহ! একদা হযরত উম্মাহাতুল মু’মিনীন আলাইহিন্নাস সালাম আমরা নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার সম্মানিত খিদমত মুবারক-এ উপস্থিত ছিলাম, তখন তিনি আমাদেরকে উদ্দেশ্যে করে ইরশাদ মুবারক করেছেন, আপনাদের মধ্যে যাঁর সম্মানিত ও পবিত্র হাত মুবারক লম্বা, তিনি সর্বপ্রথম আমার সাথে মিলিত হবেন। সুবহানাল্লাহ! এই মহাসম্মানিত ও মহাপবিত্র হাদীছ শরীফ উনার মাধ্যমে নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি উম্মুল মু’মিনীন সাইয়্যিদাতুনা হযরত আস সাবি‘য়াহ্ আত্বওয়ালু ইয়াদান আলাইহাস সালাম উনাকে দ্রুত উনার সাথে মিলিত হওয়ার সুসংবাদ মুবারক হাদিয়া মুবারক করেছেন।” সুবহানাল্লাহ! (ইবনে সা’দ ৮/৮৫)
উম্মুল মু’মিনীন সাইয়্যিদাতুনা হযরত আস সাবি‘য়াহ্ আত্বওয়ালু ইয়াদান আলাইহাস সালাম উনার সম্পর্কে উম্মুল মু’মিনীন সাইয়্যিদাতুনা হযরত আস সাদিসাহ্ আলাইহাস সালাম তিনি বলেন,
وَكَانَتِ امْرَأَةً صَالِحَةً صَوَّامَةً قَوَّامَةً.
অর্থ: “তিনি ছিলেন অত্যন্ত নেককার, অধিক রোযা পালনকারিণী, অনেক বেশি নামায আদায়কারিণী।” (ইবনে সা’দ ৮/৮২)
ইবনে আসাকির রহমতুল্লাহি আলাইহি তিনি ‘তারীখে দিমাশক্ব’ উনার মধ্যে উল্লেখ করেন,
قالت اُمُّ الْمُؤْمِنِيْنَ سَيِّدَتُنَا حَضْرَتْ اَلسَّادِسَةُ عَلَيْهَا السَّلَامُ (سَيِّدَتُنَا حَضْرَتْ أم سلمة عَلَيْهَا السَّلَامُ) وكانت لرسول الله صلى الله عليه وسلم معجبة وكان يستكثر منها وكانت امرأة صالحة صوامة قوامة صناعا تصدق بذلك كله على المساكين.
অর্থ: “উম্মুল মু’মিনীন সাইয়্যিদাতুনা হযরত আস সাদিসাহ্ আলাইহাস সালাম তিনি বলেন, উম্মুল মু’মিনীন সাইয়্যিদাতুনা হযরত আস সাবি‘য়াহ্ আত্বওয়ালু ইয়াদান আলাইহাস সালাম তিনি ছিলেন নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার নিকট অত্যন্ত প্রিয় এবং নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি বেশি বেশি উনার সম্মানিত ছানা-ছিফত মুবারক, সম্মানিত প্রশংসা মুবারক করতেন। সুবহানাল্লাহ! তিনি ছিলেন অত্যন্ত নেককার, অধিক রোযা পালনকারিণী, অনেক বেশি নামায আদায়কারিণী এবং হাতের কাজে অত্যন্ত পারদর্শী। তিনি নিজ হাত মুবারক-এ কাজ করে উপার্জিত সমস্ত অর্থ ফক্বীর-মিসকীনদেরকে দান করে দিতেন।” সুবহানাল্লাহ! (দারীখে দিমাশক্ব ৩/২১২)

শেয়ার করুন
TwitterFacebookGoogle+

Leave a Reply

[fbls]