মাসউদুর রহমান -blog


...


 


কোন মু’মিন মুসলমান কখনই ছোঁয়াচে রোগে বিশ্বাসী হতে পারে না। যারা বলে থাকে যে, করোনা একটি ছোঁয়াচে রোগ তারা


মহাসম্মানিত ইসলামী শরীয়ত উনার দৃষ্টিতে ছোঁয়াচে বলতে কোন রোগ নেই। যা সরাসরি মহাসম্মানিত ও মহাপবিত্র হাদীছ শরীফ দ্বারাই প্রমাণিত। রোগ-বালাই যা কিছুই হয়ে থাকে তা একমাত্র খ¦ালিক্ব মালিক রব মহান আল্লাহ পাক উনার তরফ থেকেই এসে থাকে। সুতরাং রোগকে ছোঁয়াচে বলে



সত্য চিরস্থায়ী ও সুন্দর, মিথ্যা ক্ষণস্থায়ী ও কুৎসিত


সদা সত্য কথা বলবে, মিথ্যা বলা মহাপাপ। এই সহজ-সরল বাক্য দুটি ছোটবেলা আমরা সকলেই পাঠ করেছি। আজকাল এই অত্যাধুনিক যুগে শিশুদের এমন পাঠ দেয়া হয় না। কারণ এই উক্তি দুটি তাদের জীবনে সাফল্য অর্জনে বাধা হতে পারে। সমাজে একজন সত্যবাদীকে খুঁজে



সাইয়্যিদুল মুরসালীন, ইমামুল মুরসালীন, নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার অবমাননাকারীদের প্রতি বিখ্যাত কয়েকজন খলীফা


আমীরে শো’বাহ হযরত আব্দুল্লাহ ইবনে মাসউদ রদ্বিয়াল্লাহু তায়ালা আনহু উনার ফায়ছালা: হযরত আব্দুল্লাহ ইবনে মাসউদ রদ্বিয়াল্লাহু তায়ালা আনহু তিনি জানতে পারলেন যে, বনু হানিফার এক মসজিদে নূরে মুজাসসাম হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার পবিত্র রিসালাত মুবারক অস্বীকারকারী ও



সম্মানিত চার মাযহাবের ইমামগণই বাইয়াত গ্রহণ করেছেন


হযরত আবদুল্লাহ ইবনে উমর রদ্বিয়াল্লাহু তায়ালা আনহু উনার থেকে বর্ণিত, নূরে মুজাসসাম হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি থেকে ইরশাদ মুবারক করেন- ومن مات وليس في عنقه بيعة، مات ميتة جاهلية অর্থ: যে ব্যক্তি বাইয়াত ছাড়া মারা গেল সে



সারাদিন যাদের পয়সার ফিকির (চিন্তা), তারা কি করে দ্বীনী কাজ করবে?


পবিত্র হাদীছ শরীফ উনার মধ্যে ইরশাদ মুবারক হয়েছে- দুনিয়ার লোভ বা দুনিয়ার মোহ আলিমের অন্তর থেকে ইলিম বের করে দেয়। পবিত্র হাদীছ শরীফ উনার মধ্যে আরো ইরশাদ মুবারক হয়েছে- تعس عبد الدنيا – تعس عبد الدينار والدرهم অর্থ: দুনিয়াদার বান্দাদের জন্য



রাজারবাগ শরীফ উনার হযরত মুর্শিদ ক্বিবলা আলাইহিস সালাম তিনিই একমাত্র হক্ব


মুঘল সাম্রাজ্যের অধিপতি বাদশাহ শাহজাহানের নাম আমরা শুনেছি। এই বাদশাহ একবার খুজলি পাচড়া বা চুলকানী রোগে আক্রান্ত হলে সে রোগমুক্তির জন্য কবিরাজ রেশমী কাপড় পরিধানের পরামর্শ দেয়। বাদশাহ রাজ দরবারের মুফতির নিকট ফতওয়া তলব করেন এ অবস্থায় উনার জন্য রেশমী কাপড়



হিজরী নববর্ষ পালন করা হারাম


মুসলমানরা আজ মহাসম্মানিত ও মহাপবিত্র কুরআন শরীফ, মহাসম্মানিত ও মহাপবিত্র হাদীছ শরীফ, পবিত্র ইজমা শরীফ এবং পবিত্র ক্বিয়াস শরীফ সম্পর্কে অজ্ঞ থাকার কারণে সর্বোপরি যামানার ইমাম ও মুজাদ্দিদ উনাকে না চিনার কারণে তথা যিনি খলীফাতুল্লাহ, খলীফাতু রসুলিল্লাহ, ক্বায়িম মাক্বামে হাবীবুল্লাহ ছল্লাল্লাহু



সাইয়্যিদুনা হযরত ইমামুছ ছালিছ মিন আহলি বাইতি রসূলিল্লাহি ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার পবিত্রতম ক্বওল মুবারক থেকে স্পষ্ট হয়েছে


হযরত খাজা মুঈনুদ্দীন চিশতী রহমতুল্লাহি আলাইহি তিনি বলেছেন, “ ইমামুছ ছালিছ মিন আহলি বাইতি রসূলিল্লাহি ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি আসল ও নকলের পরিচয় পরিষ্কার দেখিয়ে গেলেন।” ইয়াযীদের সঙ্গে যুদ্ধ করার জন্য ইমামুছ ছানী মিন আহলি বাইতি রসূলিল্লাহি ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া



সাইয়্যিদুনা হযরত ইমামুছ ছালিছ মিন আহলি বাইতি রসূলিল্লাহি ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার পবিত্রতম ক্বওল মুবারক থেকে স্পষ্ট হয়েছে


হযরত খাজা মুঈনুদ্দীন চিশতী রহমতুল্লাহি আলাইহি তিনি বলেছেন, “ ইমামুছ ছালিছ মিন আহলি বাইতি রসূলিল্লাহি ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি আসল ও নকলের পরিচয় পরিষ্কার দেখিয়ে গেলেন।” ইয়াযীদের সঙ্গে যুদ্ধ করার জন্য ইমামুছ ছানী মিন আহলি বাইতি রসূলিল্লাহি ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া



এক বছরের স্বচ্ছলতা, সুস্থতার সহজ উপায়


পবিত্র আশূরা শরীফ উনার ফযীলত সম্পর্কিত পরিবারবর্গকে ভাল খাওয়ানো ও ভালো পরানোর মাধ্যমে উক্ত ফযীলত হাছিল করা সম্ভব। এ সম্পর্কে পবিত্র হাদীছ শরীফ উনার মধ্যে বর্ণিত রয়েছে- عَنْ حَضَرَتْ عَبْدِ اللهِ بْنِ مَسْعُوْدٍ رَضِىَ اللهُ تَعَالىٰ عَنْهُ اَنَّ رَسُوْلَ اللهِ صَلَّى



নারী সমাজকে রক্ষায় সাইয়্যিদাতুনা হযরত উম্মুল উমাম আলাইহাস সালাম উনার ছোহবত মুবারক ইখতিয়ার করার বিকল্প নেই


কথিত নারী স্বাধীনতার কুৎসিত রূপ প্রকাশ পাচ্ছে। নারী সমাজ সিগারেট থেকে ভয়ঙ্কর মাদক সেবন ও বিকি-কিনিতে আষ্টেপৃষ্ঠে জড়িয়ে গেছে। মদ্যপায়ী নারীদের সংখ্যা আশঙ্কাজনকভাবে বাড়ছে দেশজুড়ে। আধুনিকতার নামে বল্গাহারা মানসিকতা এবং বিদেশী সিরিয়ালের প্রভাবে রাজধানীতে বিভিন্ন বিয়ে-শাদী, মুসলমানি, জন্মদিন এবং সামাজিক অনুষ্ঠানে



দ্বীন ইসলাম উনাকে নিয়ে কটূক্তিকারী ও মানহানিকারীর শরয়ী শাস্তির বিধান


পবিত্র হাদীছ শরীফ উনার মধ্যে ইরশাদ মুবারক হয়েছে, قَالَ حَدَّثَنَا ابْنُ عَبَّاسٍ، أَنَّ أَعْمَى، كَانَتْ لَهُ أُمُّ وَلَدٍ تَشْتُمُ النَّبِيَّ صلى الله عليه وسلم وَتَقَعُ فِيهِ فَيَنْهَاهَا فَلاَ تَنْتَهِي وَيَزْجُرُهَا فَلاَ تَنْزَجِرُ – قَالَ – فَلَمَّا كَانَتْ ذَاتَ لَيْلَةٍ جَعَلَتْ تَقَعُ